ইসলামাবাদ:  অন্য দেশের হয়ে গুপ্তচর বৃত্তির অপরাধে পাকিস্তান সেনাবাহিনীর অবসরপ্রাপ্ত এক জেনারেলকে যাবজ্জীবন কারাদণ্ডের নির্দেশ। শুধু তাই নয়, একই অপরাধে এক ব্রিগেডিয়ার ও আর এক অসামরিক অফিসারকে মৃত্যুদণ্ডের নির্দেশ শোনান হয়েছে। পাকিস্তান সেনাবাহিনীর তরফে দেওয়া এক বিবৃতিতে এমনটাই জানানো হয়েছে। জানা গিয়েছে রুদ্ধদ্বার এক শুনানিতে সেনাপ্রধান জেনারেল কামার জাভেদ বাজওয়া এই সিদ্ধান্তে সিলমোহর দিয়েছেন।

একাধিক অভিযোগ রয়েছে সাজা প্রাপ্ত সেনা আধিকারিকদের বিরুদ্ধে। জানা গিয়েছে, দোষীদের বিরুদ্ধে পাকিস্তানে বসেই চরবৃত্তি এবং জাতীয় নিরাপত্তা সমস্যার মধ্যে পড়ে এমন গোপন বহু তথ্য তুলে দেওয়ার মতো মারাত্মক অভিযোগ রয়েছে। আর সেই কারণে চরম এই সাজা বলে পাকিস্তান সেনাবাহিনীর তরফে দেওয়া বিবৃতিতে জানানো হয়েছে।

পাক সেনাবাহিনীর তরফে দেওয়া বিবৃতি অনুযায়ী, অবসরপ্রাপ্ত লেফটেন্যান্ট জেনারেল জাভেদ ইকবালকে যাবজ্জীবন কারাদণ্ডের সাজা শোনানো হয়েছে। পাকিস্তানি আইনে যার অর্থ তাঁকে ১৪ বছর জেলে কাটাতে হবে। অবসরপ্রাপ্ত ব্রিগেডিয়ার রাজা রিজওয়ান ও একটি সেনা সংস্থা নিযুক্ত চিকিৎসক ওয়াসিম আক্রমকে মৃত্যুদণ্ড দেওয়া হয়েছে।

সাজা ঘোষণা করা হয়েছে এই বিষয়ে বিবৃতি দিয়ে পাকিস্তান সেনার তরফে জানানো হলেও কাকে বা কোন বিদেশ সংস্থাকে দেশের গোপন তথ্য তাঁরা তুলে দিয়েছে তা জানানো হয়নি। পাকিস্তানি সেনার নিজস্ব আইন এবং কোর্ট রয়েছে। অভিযুক্ত সেনা অফিসারদের মামলায় সব সময় রুদ্ধদ্বার শুনানি হয়। রায় চ্যালেঞ্জ করতে হলে সেনার আইন মেনেই তা করতে হবে বলে জানা গিয়েছে।