ইসলামাবাদ: পাশে নেই পাক মিডিয়া। এমনও দিন দেখতে হল খোদ প্রধানমন্ত্রী ইমরান খানকেই। ভারতে করোনাভাইরাস রুখতে আচমকা লকডাউন ডাকেন প্রধানমন্ত্রী মোদী। পরে তিনি মন কি বাত অনুষ্ঠানে জনগণের দুর্ভোগের জন্য় ক্ষমাও চান। এরই সমালোচনা করেন ইমরান খান।

পাকিস্তানের প্রধানমন্ত্রীর খোঁচা, আগেভাগে কিছু চিন্তাভাবনা না করেই হঠাৎ ভারতে লকডাউন ঘোষণা করেছেন মোদী। ভুল বুঝে পরে তিনি ক্ষমা চেয়ে নিয়েছেন।

মোদীকে নিয়ে করা ইমরানের এই মন্তব্যের পর খোদ পাক সংবাদ মাধ্যমেই সমালোচিত ইমরান। পাকিস্তানের সর্বাধিক জনপ্রিয় সংবাদমাধ্যম জিও নিউজ চ্যানেলের দাবি, ইমরান খান নরেন্দ্র মোদীকে নিয়ে যে মন্তব্য করেছেন তার সঙ্গে বাস্তবের মিল নেই।

ভারতে করোনা মোকাবিলায় বাধ্য হয়েই ২১ দিনের লকডাউন ঘোষণা করেছেন ভারতের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী। পরে এর জেরে উদ্ভূত সমস্যা নিয়ে ক্ষমা চেয়েছেন মাত্র। তিনি ওই অনুষ্ঠানে জানিয়েছেন, করোনা মোকাবিলায় লকডাউন ছাড়া তাঁর কাছে বিকল্প আর কোনও পথ খোলা ছিলো না। ভারতে করোনাভাইরাস মোকাবিলায় মোদীর ভূমিকার সমর্থন করেছে জিও নিউজ।

ইমরান খানের দাবি, কোনও চিন্তা ভাবনা না করেই ভারতে লকডাউন ঘোষণা করে দিয়েছিলেন মোদী। পরে ভুল বুঝতে পেরে তিনি নাকি ক্ষমা চেয়েছেন।

এর পরেই জিও নিউজের মতো সংবাদ চ্যানেল বিষয়টি নিয়ে সরব হয়। করোনাভাইরাস পাকিস্তানেও থাবা মেরেছে। ১৬০০ জনের বেশি আক্রান্ত। ২৮ জনের মৃত্যু হয়েছে।