করাচি: সংস্কারের রাস্তায় হাঁটার পরামর্শ দিলেন পাকিস্তানের সেনাপ্রধান জেনারেল কামার জাভেদ বাজওয়া৷ তাঁর মতে দেশের মাদ্রাসাগুলিতে সংস্কার আনা প্রয়োজন৷ মাদ্রাসাগুলির আধুনিকীকরণ জরুরি।

পাকিস্তানে সক্রিয় জঙ্গি গোষ্ঠীগুলোতাদের নতুন সদস্য পেতে মাদ্রাসাগুলোকে ব্যবহার করে বলে দীর্ঘদিন ধরেই অভিযোগ৷ তারই প্রেক্ষিতে এক অনুষ্ঠানে এই মন্তব্য করেন তিনি৷ তিনি মাদ্রাসা শিক্ষার বিরুদ্ধে নন, কিন্তু মাদ্রাসাগুলো নিজেদের প্রচলিত ধ্যান ধারণার বাইরে বেরোতে না পেরে, পিছিয়ে পড়ছে বলে জানান তিনি৷ দক্ষিণ-পশ্চিমের বেলুচিস্তান প্রদেশের পেশোয়ার শহরে যুব সম্প্রদায়ের এক অনুষ্ঠানে এদিন যোগ দেন তিনি৷

পড়ুন: মুখ্যমন্ত্রীর উপস্থিতিতে তিনশো জঙ্গির আত্মসমর্পণ

জেনারেল বাজওয়া বলেন, ধর্মীয় শিক্ষা দেয়ার স্কুল হিসেবে মাদ্রাসাগুলো নিজেদের কার্যকারিতা হারিয়েছে। তিনি আরো বলেন, এসব মাদ্রাসার জন্য মানসম্মত আধুনিক শিক্ষা কারিকুলাম প্রণয়নের প্রয়োজন দেখা দিয়েছে। পাক সেনাপ্রধান বলেন, মাদ্রাসা সম্পর্কে প্রচলিত যে ধারণা রয়েছে তা বদলে দিতে হবে। মাদ্রাসার মধ্যে দিয়ে ছড়িয়ে দিতে হবে আন্তর্জাতিক মানের শিক্ষা৷ মাদ্রাসার গুণগত মান যে হারিয়ে গেছে, তা স্বীকার করতে দ্বিধা নেই বলেও মন্তব্য করেন তিনি৷

প্রসঙ্গত, পাকিস্তানে সরকারি নথিভুক্ত প্রায় ২,০০০ মাদ্রাসা রয়েছে। কিন্তু সরকারি তালিকার বাইরে এর চেয়ে আরো অনেক বেশি মাদ্রাসা রয়েছে বলে মনে করা হয়। পাকিস্তান সহ প্রতিবেশী দেশগুলোতে যেসব নাশকতার ঘটনা ঘটে, তার পিছনে কিছু মাদ্রাসা সক্রিয় রয়েছে বলে অভিযোগ রয়েছে।

সাম্প্রতিক সময়ে মাদ্রাসার পড়ুয়াদের একাংশ সন্ত্রাসবাদী কার্যকলাপে জড়িয়ে পড়ার জেরে বেশ কিছু মাদ্রাসা বন্ধ করে দিয়েছে পাক সরকার৷ তবে জনরোষ ফুঁসে ওঠার ভয়ে মাদ্রাসাগুলোর বিরুদ্ধে ব্যাপকহারে পদক্ষেপ নিচ্ছে না ইসলামাবাদ সরকার বলে বিশেষজ্ঞদের ধারণা৷