নয়াদিল্লি: উৎসবের মরসুমে করোনা নিয়ে দেশবাসীকে সতর্কতা শোনালেন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী। মঙ্গলবারে জাতির উদ্দেশ্যে ভাষণে মোদী বলেন, যতদিন না অবধি মহামারির ভ্যাকসিন না আসছে, ততদিন ভাইরাসের বিরুদ্ধে চলা এই লড়াই থামানো চলবে না।

তিনি জানান, যে সব ব্যক্তিরা মাস্ক ছাড়া এখন বাইরে যাচ্ছেন, তাঁরা নিজদের পাশাপাশি বাড়ির বাচ্চাদের ও বয়স্কদের বিপদে ফেলছেন।

আরও পড়ুন – ভ্যাকসিন না আসা পর্যন্ত সাবধান থাকতে হবে, দেশবাসীর উদ্দেশ্যে বার্তা মোদীর

ভ্যাকসিন সম্পর্কে প্রধানমন্ত্রী বলেন, ভারত দুটি তিনটি সম্ভাব্য ভ্যাকসিন নিয়ে কাজ করছে এবং বিশ্বের অন্যান্য দেশগুলির মতো আমরাও একটি ভ্যাকসিন পাওয়ার জন্য যথাসাধ্য চেষ্টা করছি”।

তিনি জানান, ভ্যাকসিন এলেই তা দ্রুত বন্টন করা হবে৷ প্রত্যেক নাগরিক যাতে ভ্যাকসিন পায়, তার জন্য সবরকমের চেষ্টা চলছে৷ তাই ভ্যাকসিন না আসা পর্যন্ত বিধি নিষেধে কোনও গাফিলতি নয়৷

উৎসবের মরশুমের শেষে গোটা দেশে করোনার সংক্রমণ আরও বিপজ্জনক চেহারা নিতে পারে বলে বারবার আশঙ্কা প্রকাশ করেছেন বিশেষজ্ঞরা। এদিন প্রধানমন্ত্রীর দেওয়া ভাষণেও সেই প্রতিধ্বনিই শোনা গেল। প্রধানমন্ত্রী বলেন, ‘‘আমাদের ভুললে চলবে না, লকডাউউন গেলেও ভাইরাস যায়নি। গত ৭-৮ মাসে ভারতীয়দের প্রয়াসেই করোনাকে নিয়ন্ত্রণে রাখা গিয়েছে। সেই তৎপরতাকে ভেস্তে দেওয়া চলবে না।’’

আরও পড়ুন – বাংলায় দৈনিক আক্রান্ত চার হাজার ছাড়াল, মৃত আরও ৬১

গোটা দেশে করোনার সংক্রমণ এখনও বিপজ্জনক রূপেই রয়েছে। বিন্দুমাত্র গাফিলতির ফলও মারাত্মক হতে পারে বলে এদিন সতর্ক করেছেন প্রধানমন্ত্রী। ভাষণে তিনি বলেন, ‘‘করোনাভাইরাস এখনও আছে, এটা মনে রাখতে হবে। করোনার ভয় নেই, এটা ভাবলে চলবে না। লকডাউউন গেলেও ভাইরাস যায়নি। করোনা আছে, এটা মনে রাখুন।’’

জেলবন্দি তথাকথিত অপরাধীদের আলোর জগতে ফিরিয়ে এনে নজির স্থাপন করেছেন। মুখোমুখি নৃত্যশিল্পী অলোকানন্দা রায়।