4G যুগ অতীত! প্রযুক্তিক্ষেত্রে বিপ্লব ঘটাতে আসবে ৫জি পরিষেবা। আর সেই পরিষেবা পুরোদমে চালু করতে স্মার্টফোনে সফলভাবে ৫জি নেটওয়ার্ক ব্যবহার করে ‘মাল্টি-পার্টি’ ভিডিও কল পরীক্ষা চালিয়েছে OppO। সোশ্যাল মিডিয়ার মাধ্যমের অ্যাপ উইচ্যাটে এই পরীক্ষা চালায় স্মার্টফোন নির্মাতা এই চিনা সংস্থাটি। সংস্থার পক্ষ থেকে বলা হয়, বিশ্বজুড়ে সংস্থার গবেষণা ও উন্নয়ন (আরঅ্যান্ডডি) বিভাগের ছয়জন ইঞ্জিনিয়ার এই ভিডিও কলে অংশ নিয়েছেন।

OppO আর১৫ প্রো-সিরিজের একটি ৫জি স্মার্টফোন ব্যবহার করে পরীক্ষা চালানো হয়। ১০০ মেগাহার্টজ ব্যান্ডউইথের ৫জি নেটওয়ার্কে ১৭ মিনিট ধরে ভিডিও কল করেন ওই ইঞ্জিনিয়াররা। বিশ্বজুড়ে OppO-র ছটি আরঅ্যান্ডডি থেকে ভিডিও কলে যুক্ত হন ছয় ইঞ্জিনিয়ার।

ভিডিও কলের সময় ‘নিরবিচ্ছিন্ন সংযোগ এবং কম সমস্যা’ ছিল বলে জানানো হয়েছে। OppO-র পক্ষ থেকে বলা হয়, ৫জি পরীক্ষার জন্য তারা কিসাইট-এর ইউএক্সএম সিগনালিং টেস্ট সেট এবং ৫জি নিউ রেডিও নেটওয়ার্ক ইমুলেশন ব্যবহার করা হয়েছে।

চলতি বছরের অগাস্টে প্রথমবারের মতো স্মার্টফোনে ৫জি সিগনালিং ও ডেটা সংযোগ আনে OppO। আর অক্টোবরে প্রথমে সংস্থা হিসেবে স্মার্টফোনে ৫জি ইন্টারনেট পরীক্ষা করে তারা।

লাল-নীল-গেরুয়া...! 'রঙ' ছাড়া সংবাদ খুঁজে পাওয়া কঠিন। কোন খবরটা 'খাচ্ছে'? সেটাই কি শেষ কথা? নাকি আসল সত্যিটার নাম 'সংবাদ'! 'ব্রেকিং' আর প্রাইম টাইমের পিছনে দৌড়তে গিয়ে দেওয়ালে পিঠ ঠেকেছে সত্যিকারের সাংবাদিকতার। অর্থ আর চোখ রাঙানিতে হাত বাঁধা সাংবাদিকদের। কিন্তু, গণতন্ত্রের চতুর্থ স্তম্ভে 'রঙ' লাগানোয় বিশ্বাসী নই আমরা। আর মৃত্যুশয্যা থেকে ফিরিয়ে আনতে পারেন আপনারাই। সোশ্যালের ওয়াল জুড়ে বিনামূল্যে পাওয়া খবরে 'ফেক' তকমা জুড়ে যাচ্ছে না তো? আসলে পৃথিবীতে কোনও কিছুই 'ফ্রি' নয়। তাই, আপনার দেওয়া একটি টাকাও অক্সিজেন জোগাতে পারে। স্বতন্ত্র সাংবাদিকতার স্বার্থে আপনার স্বল্প অনুদানও মূল্যবান। পাশে থাকুন।.

জীবে প্রেম কি আদৌ থাকছে? কথা বলবেন বন্যপ্রাণ বিশেষজ্ঞ অর্ক সরকার I।

Comments are closed.