কলকাতা: সালটা ২০১৩। ‘মিশর রহস্য’ দিয়ে সফর শুরু করেছিল পরিচালক-নায়িকার জুটি। তারপর ‘জাতিস্মর’-এর থমকে গিয়েছিল যাত্রা। সৃজিতের ছবিতে আর দেখা মেলেনি স্বস্তিকার। তবে টলিপাড়ার বাতাসে উড়ছে নতুন খবর। ফের সৃজিতের সিনেমায় দেখা যেতে পারে স্বস্তিকাকে। থেমে যাওয়া সফর শুরু হচ্ছে ‘চৌরঙ্গী’ থেকে।

এতদিনে সকলের জানা হয়ে গিয়েছে, শংকরের ‘চৌরঙ্গী’ নিয়ে এবার ময়দানে সৃজিত। খেলোয়াড় প্রসেনজিৎ চট্টোপাধ্যায়, যিশু সেনগুপ্ত, আবির চট্টোপাধ্যায়, মমতা শংকর ও জয়া এহসান। একসময় যে ছবিতে উত্তম কুমার, শুভেন্দু চট্টোপাধ্যায়, বিশ্বজিৎ চট্টোপাধ্যায়, অঞ্জনা ভৌমিক, উৎপল দত্তের মতো কাল্ট অভিনেতা-অভিনেত্রীরা অভিনয় করেছেন, সেখানে নতুন করে তা দর্শকদের সামনে তা তুলে ধরার কঠিন কাজটি হাতে নিয়েছেন পরিচালক। আর এই কাজে গল্পের স্রষ্টা পুরো ভরসা রাখছেন সৃজিতের ওপর। শংকরের কথায়, ” ‘চৌরঙ্গীর সঙ্গে কোনও ভুল করবেন না সৃজিত।” এদিকে পরিচালক জানিয়েছেন, নতুন এই ছবি শংকরের উপন্যাস থেকে অনুপ্রাণিত হয়ে তৈরি হবে ঠিকই। তবে এর সঙ্গে ৬৮-র সিনেমার কোনও মিল থাকবে না।

আরও পড়ুন: বিপাশাকে নিয়ে কী বললেন পরিচালক জানলে চমকে যাবেন

পাঁচের দশকের কলকাতাকে ‘ চৌরঙ্গী’র দু’মলাটের পাতায় পাতায় জীবন করে তুলেছিলেন শংকর। যে কাহিনি ৬৮ সালে ক্যামেরায় বন্দি করেছিলেন পরিচালক পিনাকী ভূষণ মুখোপাধ্যায়। যেখানে মুখ্য চরিত্র চরিত্র শংকর হিসেবে দেখা গিয়েছিল শুভেন্দু চট্টোপাধ্যায়কে। তবে সাটা বোসের চরিত্রে উত্তমকুমার আজও দর্শকদের মনে রয়ে গিয়েছেন৷ আর করবী গুহর চরিত্রে ছিলেন সুপ্রিয়া দেবী। সৃজিতের ছবিতে এই চরিত্রের জন্য উঠে আসছে স্বাস্তিকার নাম। যদিও প্রথমে করবীর চরিত্রের জন্য শোনা গিয়েছিল জয়া আয়সানের নাম।

আরও পড়ুন: ‘ইয়ামলা পাগলা দিওয়ানা ফির সে’ টিজারে নস্টালিজায় ভাসল দর্শক

এবার দেখি কার চরিত্রে দেখা যাবে কোন মুখকে। উত্তম কুমার অভিনীত স্যাটা বোসের চরিত্রে দেখা যাবে প্রসেনজিৎ চট্টোপাধ্যায়। শংকর অর্থাৎ সূত্রধরের ভূমিকায় আবীর চট্টোপাধ্যায়। অনিন্দ্য পাকড়াশির চরিত্রে থাকছেন যিশু সেনগুপ্ত। মিসেস পাকড়াশি হচ্ছেন মমতা শংকর। এছাড়া মার্কোর চরিত্রে অঞ্জন দত্ত। সংগীতের দায়িত্বে থাকছেন অনুপম রায়। আপাতত চলছে ছবির প্রি-প্রোডাকশনের কাজ। সব ঠিক থাকলে চলতি মাসেই ময়দানে নামবেন সৃজিত ও চৌরঙ্গী টিম।