মিশা এবং জৈন,দুই সন্তানকে নিয়ে ছুটি কাটাতে বেরিয়ে পরেছেন৷ মুম্বই বিমানবন্দরে তাদের দেখা গেল৷ ফ্রেমবন্দি করল পাপারাৎজীরা৷ তবে সেই ছবি ভাইরাল হতেই ইন্টারনেটে ট্রোলিংয়ের শিকার মীরা রাজপুত৷ কারণ সেই ছবিতে দেখা যাচ্ছে ছোট্ট জৈনকে নিজে কোলে না নিয়ে ন্যানির কোলে দেওয়া হয়েছে৷ এবং তার আরেক সন্তান মিশার জন্যও আরেক ন্যানিকে দেখা যাচ্ছে৷ এমনকি নেটিজেনরা মীরাকে করিনার সঙ্গেও তুলনা করেন৷

এক সময় করিনার তৈমুরের জন্য ন্যানি রাখার বিষয়কে যথেষ্ট সমালোচনা করেছিলেন মীরা৷ সেই বিষয়কে টেনে এনে নেটিজেনদের কটাক্ষ, করিনা তো কর্মরতা মা আর আপনি তো বলেছিলেন যে ‘‘আপনি প্রাউড হাইজওয়াইউ’’৷ নিজেন সন্তানের খেয়াল নিজেই রাখতে ভালবাসেন৷ করিনা কর্মরতা বলে তার সন্তানের জন্য ন্যানি প্রয়োজন৷ কিন্তু আপনি তো তা নন৷ তাহলে কেন সন্তানদের জন্য দু দুটো ন্যানি?

এক সময় মীরা এ কথাও বলেছিলেন যে তিনি বাড়িতে থেকে সন্তান মানুষ করাকেই বেশি প্রাধান্য দেন৷ এই কমেন্টের জন্য শাহিদ পত্নি তখনও সমালোচনার মুখে পড়েছিলেন৷ তবুও মুম্বই বিমানবন্দরের এই ছবি একদম অন্য কথা বলছে বলে নেটিজেনরা মনে করছেন৷ তিনি যা বলেন তা কর্মে কখনও করেন না বলেও মন্তব্য করেন অনেকে৷ অনেকে আবার করিনাকে নকল করার তার এই বৃথা চেষ্টাকে বন্ধ করার পরামর্শ দিয়েছেন সোশ্যাল মিডিয়ায়৷

এর আগেও একাধীকবার মীরাকে ট্রোল্ড হতে দেখা যায়৷ কয়েকদিন আগে দীপাবলীতে স্বামীর সঙ্গে তাঁর একটি ঘনিষ্ঠ মুহুর্তের ছবি নিয়ে সোশ্যাল মিডিয়ায় কটাক্ষ করা হয়৷ এখানেই শেষ নয় একই ভাবে যখন মীরা তার দ্বিতীয় সন্তানের জন্মের আগে একটি অ্যান্টি এজিং ক্রিমের কমার্শিয়াল বিজ্ঞাপন করেন তখন তাঁকে নেটিজেনরা প্রশ্ন করেন কি ভাবে ২৩ বছর বয়সি মীরা অ্যান্টি এজিং ক্রিমের কমার্শিয়াল করলেন৷