কলকাতা: নিখিল জৈনকে বিয়ে করার পর থেকে একের পর এক বিতর্কে জড়িয়েছেন নুসরত জাহান। বিয়ের পরে সিঁথিতে সিঁদুর ও গলায় মঙ্গলসূত্র পরে লোকসভায় শপথ গ্রহণ করেছিলেন। তার পরেই কট্টরপন্থীদের আক্রমণের শিকার হয়েছিলেন তিনি। তখনই নুসরত স্পষ্ট করে দেন, তিনি নিজে মুসলিমই থাকবেন। কিন্তু অন্য ধর্মের প্রতি তাঁর শ্রদ্ধা রয়েছে।

এর পরে কট্টরপন্থীদের ফতোয়ার তোয়াক্কা না করে ইস্কনের রথযাত্রায় দড়িও টানেন বসিরহাটের সাংসদ। এখানেই শেষ নয়। দুর্গাপুজোয় অষ্টমীর সকালে শাঁখা সিঁদুর পরে স্বামী নিখিল জৈনের সঙ্গে পৌঁছে যান সুরুচি সঙ্ঘের মণ্ডপে নুসরত। অঞ্জলিও দেন। ফের নতুন করে তাঁর বিরুদ্ধে ফতোয়া জারি করেন কট্টরপন্থীরা। তাঁদের অভিযোগ নুসরত ইসলাম ধর্মের অবমাননা করছেন। এমনকী, তাঁরা নুসরতের নাম বদলেরও দাবি করেন।

এই মন্তব্যে গুরুত্ব না দিয়ে তৃণমূল সাংসদ বিজয়া দশমীতে ফের সিঁদুর খেলেন তিনি। বৃহস্পতিবার করবা চৌথেও স্বামী নিখিল জৈনের জন্য ব্রত রাখেন নুসরত। করবা চৌথের বেশ কিছু ছবি ইনস্টাগ্রাম স্টোরিতে শেয়ার করেন তিনি। কোথাও দেখা যাচ্ছে নুসরতকে জল খাইয়ে দিচ্ছেন নিখিল। কোথাও আবার নিখিলকে খাইয়ে দিচ্ছেন নুসরত।

নুসরতের করবা চৌথ পালন নতুন করে বিতর্ক তৈরি করবে কি না তা নিয়েও আলোচনা হচ্ছে বিভিন্ন মহলে। যদিও এসবের তোয়াক্কা করছেন না নুসরত। নুসরত নিজেই এক সর্বভারতীয় সংবাদমাধ্যমের কাছে কিছুদিন আগে বলেন, আমি ঈশ্বরের সন্তান। ভালোবাসা ও মানবিকতার থেকে আমার কাছে অন্য কিছু বড় না।

প্রসঙ্গত, রাজনীতির পাশাপাশি নুসরত এই মুহূর্তে অসুর ছবির শ্যুটিং নিয়ে ব্যস্ত। এই ছবিতে রয়েছেন আবির চট্টোপাধ্যায় ও জিৎ। ছবিটি এবছরই ডিসেম্বরে মুক্তি পাবে।