অসলো: বিতর্কে থাকতে ভালোবাসেন বলেই মনে হয়৷ আগে সরব ছিলেন শরণার্থী ইস্যুতে৷ এবার ধূমপান নিয়ে মন্তব্য করে ফের শিরোনামে৷ নরওয়ের স্বাস্থ্যমন্ত্রী সিলভি লিসথাগের মন্তব্যে ছড়িয়েছে চাঞ্চল্য৷ তিনি বলেছেন মানুষ যতটা চায় ততটা মদ্যপান, ধূমপান এবং মাংস খাক৷ আকর্ষণীয় ব্যক্তিত্বের এই মহিলা রাজনীতিক বিভিন্ন সময়ে বেশ চর্চিত হয়েছেন বারে বারে৷

বিবিসি জানাচ্ছে, মন্ত্রী হয়েও জনগণকে ধূমপানে উদ্বুদ্ধ করার পরামর্শ দিয়ে বেশ বিপাকেই পড়েছেন নরওয়ের নতুন স্বাস্থ্যমন্ত্রী। শুক্রবারই তিনি দায়িত্ব নিয়েছে৷ তারপরেই করে বসলেন বিতর্কিত মন্তব্য৷ এদিকে মন্ত্রীর মন্তব্যে বিব্রত নরওয়ে সরকার৷ শুরু হয়েছে সমালোচনা৷ সমালোচকরা বলেন জনস্বাস্থ্য সম্পর্কে তার খুব একটা ধারণাই নেই। বিভিন্ন ছবিতে দেখা গিয়েছে, মন্ত্রী সিলভি লিসথাগ নিজেও ধূমপায়ী৷

স্বাস্থ্যমন্ত্রী হিসেবে দায়িত্ব নিয়ে সাক্ষাৎকার দেন সিলভি লিসথাগ৷ সেখানে তিনি বলেন, আমি কোনও নৈতিক পুলিশ হতে চাইনা এবং জনগণকে বলতে চাইনা কিভাবে তাদের জীবন যাপন করা উচিত। কিন্তু আমি জনগণকে সহায়তা করতে চাই আরও তথ্য পেতে যাতে করে সে তার পছন্দ চূড়ান্ত করতে পারে।

এতদূর পর্যন্ত সব ঠিক ছিল৷ এর পরেই বেফাঁস মন্তব্যটি করে বলেন- জনগণ যতটা চায় ততটা তাদের ধূমপান ও ড্রিংক করতে এবং রেড মিট বা লাল মাংস খেতে দেয়া উচিত। কর্তৃপক্ষ হয়তো তাদের জানাতে চায় কিন্তু মানুষ নিজেই জানে যে কোনটা তাদের জন্য স্বাস্থ্যসম্মত আর কোনটা স্বাস্থ্যসম্মত নয়।

পরে তিনি বলেন, যদিও ধূমপান ভালো নয় কারণ এটি শরীরের জন্য ক্ষতিকর। কিন্তু তারপরেও প্রাপ্তবয়স্কদেরই সিদ্ধান্ত নিতে হবে যে তারা কি চায়৷