পিয়ংইয়ংঃ   সবকিছু ঠিক থাকলে এবার জলের অনেক গভীর থেকে আরও আধুনিক মিসাইলের পরীক্ষা করতে পারে উত্তর কোরিয়া। এমনটাই আশঙ্কা প্রকাশ করলেন খোদ মার্কিন সামরিক আধিকারিকরা। সাবমেরিন থেকে এই ক্ষেপণাস্ত্র পরীক্ষা পিয়ংইয়ং চালাতে পারে বলে মনে করা হচ্ছে।

নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক দুই মার্কিন আধিকারিক সিএনএনকে বলেন, গত ৪৮ ঘণ্টার বেশি সময় ধরে উত্তর কোরিয়ার ৬৫ মিটার দীর্ঘ একটি সাবমেরিনের অস্বাভাবিক তৎপরতা নজরে পড়েছে। এর আগে আন্তর্জাতিক জলসীমার যেখানে একে দেখা গিয়েছিল এবারে এটি তার চেয়ে অনেক বেশি দূরে গিয়েছে। এটি জাপান সাগরের ৬২ মাইল ভেতরে গিয়েছে।

উত্তর কোরিয়ার ডুবোজাহাজের এমন অস্বাভাবিক আচরণ দেখে দক্ষিণ কোরিয়া এবং মার্কিন বাহিনী তাদের সতর্কতার মাত্রা খানিকটা বাড়িয়ে দিয়েছে। নজরদারির মাধ্যমে এর ওপর চোখ রাখছে ওয়াশিংটন। গত ৪ জুলাই উত্তর কোরিয়া আন্তমহাদেশীয় ব্যালিস্টিক ক্ষেপণাস্ত্রের সফল পরীক্ষা চালিয়েছিল। এই পরীক্ষাকে উত্তর কোরিয়ার নেতা কিম জং-উন আমেরিকার জন্য স্বাধীনতা দিবসের উপহার হিসেবে অভিহিত করেছিলেন। এ ছাড়া, মার্কিনীদের জন্য আরো ছোট-বড় আরো অনেক উপহার পাঠানো হবে বলেও উল্লেখ করেছিলেন তিনি।