অমরাবতী: নতুন বছরে নতুন নিয়ম৷ জিন্স পড়ে শ্রী দুর্গা মল্লেশ্বরা স্বামী মন্দিরে ঢুকতে পারবেন না মহিলারা৷ মন্দিরে ঢুকতে গেলে শাড়ি পড়েই তাদের ঢুকতে হবে৷ নয়া নিয়ম কার্যকর হচ্ছে জানুয়ারি মাসের ১ তারিখ থেকে৷

অন্ধ্রপ্রদেশের বিজয়ওয়ারার শ্রী দুর্গা মল্লেশ্বরা স্বামী মন্দির কর্তৃপক্ষ জানিয়েছে, পুরুষ ভক্তদের অনেকেই ছোট পোশাক এবং মহিলারা স্কার্ট পড়ে মন্দিরে আসেন৷ এটা হিন্দু সংস্কৃতি নয়৷ তাই ১ জানুয়ারি থেকে কনক দুর্গা আম্মাভারুর দর্শন পেতে হলে ভক্তদের সাবেকি হিন্দু পোশাক পড়েই মন্দিরে আসতে হবে৷ দর্শনাথীদের সুবিধার্থে মন্দিরের বাইরে সাবেকি হিন্দু পোশাকের স্টল বসানো হয়েছে৷ নতুন নিয়মের কথা যারা জানেন না বা যাদের কাছে সাবেকি হিন্দু পোশাক নেই তারা এখান থেকে সেই পোশাক পেয়ে যাবেন৷

মন্দিরের এক্সজিগিউটিভ অফিসার কোটেশ্বরাম্মা জানিয়েছেন, জিন্স ও স্কার্ট পাশ্চাত্য পোশাক৷ হিন্দু সংস্কৃতির অঙ্গ নয়৷ তাই এই নির্দেশিকা৷ ভক্তরা হিন্দু সংস্কৃতি মেনে চলুক৷ আগামীকাল ১ জানুয়ারি৷ সেই দিন বিশাল ভক্তের ঢল নামবে মন্দিরে৷ অনেকেই নয়া পোশাক বিধি সম্পর্কে অবগত নয়৷ তাই মন্দিরের একটি নির্দিষ্ট জায়গায় পোশাক পাল্টানোর ঘর তৈরি করা হচ্ছে৷

যদিও এই পোশাক বিধিকে খুব একটা ভালো চোখে দেখছেন না ভক্তদের অনেকে৷ তাদের মতে, বর্তমান যুগের সঙ্গে এই ধরনের মান্ধাতা আমলের ফতোয়া খাপ খায় না৷ তাছাড়া কে কী পোশাক পড়বে সেটা ভক্তদের সম্পূর্ণ ব্যক্তিগত বিষয়৷ নাস্তিকতা কেন্দ্রের প্রধান জি বিজরম মন্দির কর্তৃপক্ষের এই সিদ্ধান্তের তীব্র প্রতিক্রিয়া দিয়েছেন৷ জানিয়েছেন, ব্যক্তির পছন্দের স্বাধীনতায় হস্তক্ষেপ করছে মন্দির কর্তৃপক্ষ৷ জোর করে কখনও পরিবর্তন আনা যায় না৷