লাহোর: পাকিস্তান ক্রিকেট দলের কোচের দায়িত্ব নিয়ে বড়সড় পদক্ষেপ নিলেন মিসবা উল হক৷ ফিটনেসের উপর জোর দিতে সরফরাজ আহমেদদের খাদ্যতালিকা থেকে তাঁদের প্রিয় বিরিয়ানিকে বাদ দিলেন পাকিস্তান ক্রিকেট দলের নবনিযুক্ত কোচ৷ শুধু বিরিয়ানি নয়, পাক ক্রিকেটারদের খাদ্য তালিকা থেকে ছেঁটে ফেলা হল চর্বিযুক্ত খাবারও৷

ইংল্যান্ড ও ওয়েলসের মাটিতে বিশ্বকাপ চলাকালীন পাক-অধিনায়ক সরফরাজের ফিটনেস নিয়ে কটাক্ষ করেছিলেন শোয়েব আখতার৷ পাক ক্রিকেটারদের বিরিয়ানি প্রীতি নিয়ে সমালোচনা করেছিলেন প্রাক্তন অধিনায়ক ওয়াসিম আক্রমও। ওল্ড ট্র্যাফোর্ডে বিশ্বকাপের হাই-প্রোফাইল ভারত-পাক ম্যাচের আগে ম্যাঞ্চেস্টারের এক রেস্তোরায়ঁ পাক ক্রিকেটারদের পিৎজা ও বার্গার খাওয়ার ছবি সোশাল মিডিয়ায় ভাইরাল হয়েছিল৷

ভারতের কাছে হারতো বটেই, বিশ্বকাপে সেমিফাইনাল উঠতে পারেনি পাকিস্তান৷ বিশ্বকাপ থেকে বিদায় নেওয়ার পর অধিনায়ক হিসেবে সরফরাজের থাকা নিয়েও সংশয় দেখা গিয়েছিল৷ শেষ পর্যন্ত সিরিজ ভিত্তিক সরফরাজকেই নেতা হিসেবে বেছে নেয় পিসিবি নির্বাচকরা৷ কিন্তু কোচ ও নির্বাচক প্রধানের দায়িত্ব নিয়ে ক্রিকেটারদের ফিটনেস নিয়ে কড় হলেন মিসবা৷

পাক সাংবাদিক সাজ সাদিক টুইট করে মিসবা’র ডায়েট নিয়ে জানিয়েছেন, ‘ঘরোয়া টুর্নামেন্ট ও জাতীয় ক্যাম্পে থাকা ক্রিকেটারদের খাবারের উপরে নিষেধাজ্ঞা জারি করেছেন প্রধান কোচ মিসবা। খাদ্যতালিকা থেকে বিরিয়ানি ও চর্বিযুক্ত খাবার বাদ দিয়েছেন কোচ৷ চলবে না মিষ্টি খাওয়াও৷ চলবে না। নির্দেশ অমান্য করলে বাদ পড়তে হতে৷’

সম্প্রতি প্রাক্তন পাক অধিনায়ক মিসবাকে সরফরাজদের প্রধান কোচ এবং নির্বাচক প্রধানের দায়িত্ব দিয়েছে পিসিবি৷ বোলিং কোচ হিসেবে বেছে নেওয়া হয়েছে প্রাক্তন কোচ ওয়াকার ইউনিসকে৷ আগামী তিন বছর এই দু’জন পাকিস্তান ক্রিকেটকে এগিয়ে নিয়ে যাওয়ার দায়িত্ব হাতে নিয়েছেন৷ মিসবা ও ওয়াকারের কোচিংয়ে প্রথম অ্যাসাইনমেন্ট শ্রীলঙ্কা সিরিজ৷ ২৭ সেপ্টেম্বর থেকে ৯ অক্টোবর পর্যন্ত ঘরের মাঠে শ্রীলঙ্কার বিরুদ্ধে তিন ম্যাচের ওয়ান ডে এবং তিন ম্যাচের টি-২০ খেলবে পাকিস্তান৷