স্টাফ রিপোর্টার, কলকাতা: হাসপাতালে চিকিৎসা করার সময় ডাক্তারদের সুরক্ষা নিয়ে ছ’দিন ধরে আন্দোলনে রয়েছেন নীলরতন সরকার মেডিকেল কলেজের জুনিয়র ডাক্তাররা৷ এনআরএসের ডাক্তারদের পাশে দাঁড়িছে বাংলা ও দেশের ডাক্তার ও তাদের সংগঠন৷ ন্যাশনাল মেডিকোস অর্গানাইজেশনও নীলরতনের আন্দোলনরত ডাক্তারদের পাশে দাঁড়িয়েছেন৷

এনআরএসের জুনিয়র ডাক্তারদের বক্তব্য ছিল তাদের উপর যখন আক্রমণ হয় পুলিশ যথাযথ ব্যবস্থা নেয়নি৷ ডাক্তার বক্তব্যকে গুরুত্ব দিয়ে রাজ্যপালের সঙ্গে দেখা করে বাংলার মেডিকেল কলেজগুলোতে সেন্ট্রাল ইন্ড্রাস্ট্রিয়াল সিকিউরিটি ফোর্সের দাবি জানালেন ন্যাশনাল মেডিকোস অর্গানাইজেশনের প্রতিনিধিনি সোমনাথ সরকার৷

সোমনাথ বাবু জানান, ‘‘নীলরতনে যেটা হয়েছে (ডাক্তারদের উপর আক্রমণ) সেটা ভয়ঙ্কর৷ পরিবহ নামের ইয়াং ছেলেটির এখনও চিকিৎসাধীন৷ অথচ রাজ্যের মুখ্যমন্ত্রী গোঁ ধরে বসে রয়েছেন৷ ওঁর উচিৎ এনআরএসে এসে আন্দোলনকারী জুনিয়র ডাক্তারদের সঙ্গে কথা বলা৷ রাজ্যের পুলিশ যদি ডাক্তারদের নিরাপত্তা দিতে না পারে তাহলে অন্য ব্যবস্থা করতে হবে৷ আমরা মাননীয় রাজ্যপালকে বলেছি বাংলার মেডিকেল কলেজগুলোতে সেন্ট্রাল ইন্ড্রাস্ট্রিয়াল সিকিউরিটি ফোর্সের ব্যবস্থা করা যায় কিনা৷”

প্রসঙ্গত, গত সোমবার এনআরএস মেডিকেল কলেজে এক রোগী মৃত্যুকে কেন্দ্র করে ডাক্তার এবং চিকিৎসাশাস্ত্রের পড়ুয়াদের উপর চড়াও হন রোগীর পরিবার৷ অভিযোগ পরে বেশি সংখ্যায় লোক নিয়ে এসে ডাক্তারি ছাত্রদের উপর হামলা চালানো হয়৷ এতে গুরুত্বর যখম হয়ে আইসিইউতে ভর্তি রয়েছেন এক জুনিয়র ডাক্তার পরিবহ মুখোপাধ্যায়৷