স্টাফ রিপোর্টার, কলকাতা: করোনামুক্ত হয়ে হাসপাতাল থেকে বাড়ি ফিরলেন নাইসেড অধিকর্তা শান্তা দত্ত। জানা গিয়েছে, বুধবার রাতেই হাসপাতাল থেকে ছুটি দেওয়া হয়েছে তাঁকে। তবে এখনও বেশ কিছুদিন তাঁকে হোম আইসোলেশনে থাকতে হবে।

জুনের শেষদিক থেকেই জ্বরে ভুগছিলেন শান্তা দত্ত। তাঁর শরীরে একাধিক করোনার উপসর্গও ছিল। ফলে সন্দেহ হওয়ায় শান্তাদেবীর লালারসের নমুনা পরীক্ষা করতে পাঠানো হয়। ৩০ জুন জানা যায়, নাইসেডের অধিকর্তাও নোভেল করোনা ভাইরাসে আক্রান্ত। তবে সেই সময় তাঁর অবস্থা স্থিতিশীলই ছিল।

তাই রাখা হয়েছিল হোম আইসোলেশনে। এরই মাঝে ফুসফুসে সংক্রমণের জেরে তাঁর শারীরিক অবস্থার অবনতি হতে শুরু করে। তড়িঘড়ি তাঁকে শহরের হাসপাতালে নিয়ে যাওয়া হয়। সেখানে সিটি স্ক্যান করা হয়।

রিপোর্ট পাওয়ার পরই জানা যায়, করোনার পাশাপাশি নিউমোনিয়াতেও ভুগছেন তিনি। আট দিনের মাথায় করোনাকে হারিয়ে সুস্থ হয়ে ওঠেন নাইসেড অধিকর্তা। প্রসঙ্গত, করোনা আক্রান্ত নাইসেড অধিকর্তা শান্তা দত্তর দ্রুত আরোগ্য কামনা করে হাসপাতালে ফুল ও চিঠি পাঠিয়েছিলেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়।

পপ্রশ্ন অনেক: চতুর্থ পর্ব

বর্ণ বৈষম্য নিয়ে যে প্রশ্ন, তার সমাধান কী শুধুই মাঝে মাঝে কিছু প্রতিবাদ