লন্ডন: করোনাভাইরাস শুধু বড়দের শরীরেই আক্রমণ করে। বেশ কিছুদিন আগে এমনই তথ্যই উপস্থাপন করেছিলেন বিশ্বের তাবড়-তাবড় চিকিৎসকেরা। অবশেষে ভাঙল বিজ্ঞানীদের ভুল ধারণা। শরীরে করোনার সংক্রমণ নিয়ে জন্মাল এক সদ্যেজাত। এমনই অবাক করা ঘটনাটি ঘটেছে লন্ডনে। শনিবার সংবাদ সংস্থার তরফে এই খবর জানা গিয়েছে।

করোনা নিয়েই জন্মেছে লন্ডনের ওই শিশু। সংবাদ সংস্থা সূত্রে খবর, কিছুদিন আগেই ওই সদ্যোজাতের মা’কে জ্বর, সর্দি-কাশির জন্য হাসপাতালে ভরতি করা হয়। প্রাথমিক ভাবে অনুমান করা হয়েছিল তিনি নিউমোনিয়ায় ভুগছেন।

কিন্তু সন্তানের জন্ম দেওয়ার পর তিনি জানতে পারেন তাঁর সন্তান করোনায় আক্রান্ত। জন্মানোর কয়েক ঘন্টার মধ্যেই তার করোনার পরীক্ষা করা হয়। চিকিৎসকদের অনুমান মাতৃগর্ভে থাকাকালীনই তার দেহে করোনার সংক্রমণ হয়েছে। এখনও পর্যন্ত সর্বকনিষ্ঠ করোনা আক্রান্ত হিসেবে ওই শিশুকেই ধরা হচ্ছে। শিশু এবং শিশুর মাকে আলাদা দুটি হাসপাতালে রাখা হয়েছে। সেখানেই তাদের চিকিৎসা চলছে।

প্রসঙ্গত, গত বছর ডিসেম্বরের শেষদিকে চিনের উহানে এই ভাইরাস প্রথম ধরা পড়ে। শুরু হয় মৃত্যুমিছিল। চিনের পর করোনায় মৃত্যু মিছিল ইতালিতে। ইতিমধ্যেই করোনা ভাইরাসে আক্রান্ত হয়ে ইতালিতে ১ হাজারেরও বেশি মানুষের মৃত্যু হয়েছে। এখনও পর্যন্ত বিশ্বের প্রায় ১১৪টি দেশে মারণ এই ভাইরাসের সন্ধান পাওয়া গিয়েছে। করোনাভাইরাসের সংক্রমণকে বিশ্ব মহামারি বলে ঘোষণা করেছে বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা। গত ২৪ ঘণ্টায় ইতালিতে ১৮৯ জন করোনা ভাইরাসে আক্রান্ত হয়ে মারা গিয়েছেন।

এদিকে, প্রাণঘাতী করোনাভাইরাসের আতঙ্কে এবার সামরিক মহড়াও কাটছাঁট করছে মার্কিন বাহিনী। এর পদক্ষেপের অংশ হিসেবে মার্কিন বাহিনী তাদের চলমান মহড়ায় কম সংখ্যক সেনা পাঠাচ্ছে। ইউরোপে মার্কিন কমান্ডোর পক্ষ থেকে এমন ঘোষণা করা হয়েছে।

মার্কিন কমান্ডো এক বিবৃতিতে জানিয়েছে, সতর্কতার সঙ্গে পর্যালোচনার পর তারা চলমান ‘ডিফেন্ডার ইউরোপ-২০’ মহড়ায় তারা কমসংখ্যক সেনা পাঠাবে। করোনাভাইরাস যেভাবে গোটা দুনিয়ায় মহামারীর আকার ধারণ করেছে তারই কারণে এমন সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে বলে বিবৃতিতে জানানো হয়েছে। তবে পাশাপাশি এ মহড়াকে আমেরিকা সর্বোচ্চ গুরুত্ব দিচ্ছে বলেও ওই বিবৃতিতে দাবি করা হয়েছে।

কলকাতার 'গলি বয়'-এর বিশ্ব জয়ের গল্প