কলকাতাঃ  নতুন ডিজিটাল রেশন কার্ড তৈরি এবং রেশন কার্ডে ভুল সংশোধনের জন্যে সময়সীমা বাড়ানোর নির্দেশ দিয়েছেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। পুজোর পরে নতুন করে ফের কার্ড তৈরির দিন ঘোষণা করা হয়েছে। সেই মতো আগামী ৫ নভেম্বর থেকে ফের নতুন কার্ড তৈরি করা যাবে বলে ঘোষণাতে জানিয়েছেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। ডিজিটাল রেশন কার্ড তৈরি ও রেশন কার্ডে ভুল সংশোধনের জন্য সময়সীমা একমাস বাড়ানো হয়েছে। আগামী ৩০ নভেম্বর পর্যন্ত চলবে রেশন কার্ডের এই ভুল সংশোধনের কাজ চলবে বলে জানানো হয়েছে।

পড়ুন আরও- এনআরসি আতঙ্কের মধ্যেই ডিজিটাল রেশন কার্ড নিয়ে বড় ঘোষণা মুখ্যমন্ত্রীর

অন্যদিকে ইতিমধ্যে বিশেষ রেশন কার্ড তৈরি করার জন্যে ১০ নম্বর ফর্ম ছেড়েছে খাদ্য দফতর। সমস্ত সরকারি দফতর থেকে এই ফর্ম ছাড়া হয়েছে। সরকারি ওয়েবসাইট থেকে ফর্ম ডাউনলোড করতে হবে। শুধু তাই নয়, তা পূরণ করে স্থানীয় রেশন অফিসে জমা দেওয়া যাবে। খাদ্য দফতর সূত্রে জানা গিয়েছে, খোদ নবান্ন থেকে ১০ নম্বর ফর্ম ছাড়ার অনুমোদন দেওয়া হয়। এরপরেই তা সমস্ত সরকারি ওয়েবসাইটে দেওয়া হয়। জানা গিয়েছে, বিশেষ রেশন কার্ড দিয়ে কোনও খাদ্য সামগ্রী পাওয়া যাবে না।

পড়ুন আরও- নাম না করে মমতা-অভিষেককে নজিরবিহীন আক্রমণ বিজেপি সাংসদের

পরিচয়পত্র হিসেবে ব্যবহার করার জন্য রেশন কার্ডের চাহিদা আছে। সেই কারণেই এই বিশেষ কার্ডটি আনা হচ্ছে। বিধানসভার স্পিকার বিমান বন্দ্যোপাধ্যায়ের ডাকা সর্বদলীয় বৈঠকে এব্যাপারে সর্বসম্মতিক্রমে প্রস্তাব নেওয়া হয়েছিল। বিশেষ রেশন কার্ড প্রাপকদের কিছু ছাড় দেওয়া নিয়ে কয়েকটি শপিং মল সংস্থার সঙ্গে আলোচনা চলছে খাদ্য দফতরের।

অন্যদিকে নভেম্বর মাস থেকে ফের রেশন কার্ডের জন্য বিশেষ শিবির চালু হচ্ছে। সেখানে খাদ্য সামগ্রী পাওয়ার কার্ডের পাশাপাশি বিশেষ কার্ডের জন্য আবেদন করা যাবে। প্রথম দফায় সেপ্টেম্বর মাসে বিশেষ ক্যাম্পে নতুন রেশন কার্ডের জন্য প্রায় আট লক্ষ আবেদনপত্র জমা পড়েছে। আবেদনকারীদের আর্থিক অবস্থা খতিয়ে দেখে ভর্তুকিতে খাদ্য সামগ্রী দেওয়ার কার্ড দেওয়া হবে। আর্থিক অবস্থা খতিয়ে দেখার কাজ পুজোর ছুটির পর শুরু হবে বলে খাদ্য দপ্তর সূত্রে জানা গিয়েছে। সেপ্টেম্বর মাসে বিশেষ শিবিরে রেশন কার্ডের ভুল সংশোধনের জন্য প্রায় ১৮ লক্ষ আবেদন জমা পড়েছে। এখন থেকে সব রেশন কার্ড গ্রাহকের বাড়িতে সরাসরি ডাক মারফত পাঠানো হবে।