মুম্বই: প্রয়াত অভিনেতা সুশান্ত সিং রাজপুতের মৃত্যুর শোক এখনও কাটিয়ে উঠতে পারেনি তাঁর পরিবার ও অনুরাগীরা। আরই এরই মধ্যে রণবীর সিং এর একটি বিজ্ঞাপন দেখে বেজায় চটলেন সুশান্তের অনুরাগীরা। তাঁদের দাবি সুশান্তকে ওই বিজ্ঞাপনে নিশানা করে তাঁকে নিয়ে মজা করা হয়েছে।

সুশান্ত যে পদার্থ বিদ্যা নিয়ে বিশেষ আগ্রহ রাখতেন তা সর্বজনবিদিত। পদার্থবিদ্যা নিয়ে বিভিন্ন পোস্টও করতেন। অভিনেতার মেধায় মুগ্ধ ছিলেন তাঁর ভক্তরা। এই বিজ্ঞাপনেও রণবীরকে পদার্থবিদ্যা সম্পর্কিত বেশ কয়েকটি শব্দ ব্যবহার করতে দেখা যায়। একটি অর্থহীন বাক্যে রণবীর পদার্থবিদ্যার সঙ্গে যুক্ত অর্থগুলি পরপর বলে যান। যার জন্য সুশান্তের ভক্তদের দাবি, প্রয়াত অভিনেতাকে বিদ্রুপ করেছেন তিনি।

ভিডিওয় দেখা যাচ্ছে পরিবারের এক অনুষ্ঠানে এক বৃদ্ধ লোক রণবীরকে জিজ্ঞাসা করছেন, ভবিষ্যতে তোমার পরিকল্পনা কী? বৃদ্ধদের প্রশ্নে জর্জরিত হয়ে রণবীর শেষে একটি অর্থহীন বাক্যে জবাব দেন। সেখানেই প্যারাডক্সিকাল ফোটন, অ্যালগোরিদম ইত্যাদি শব্দ ব্যবহার করেন। এই অর্থহীন বাক্যেই অসন্তুষ্ট হয়েছেন সুশান্তের ভক্তরা। এই নির্দিষ্ট পণ্যটি বয়কট করার ডাক দিয়েছেন তারা।

নেট দুনিয়ায় নেটিজেনদের মধ্যে দুটো ভাগ তৈরি হয়ে গিয়েছে। সুশান্তের ভক্তরা যেমন এই বিজ্ঞাপন বয়কট করার দাবি করেছেন। তেমন অন্যদিকে আর একদল নেটিজেন এর দাবি, এই বিজ্ঞাপনে এমন কিছু নেই যা সুশান্তকে বিদ্রুপ করেছে। নিখাদ রসিকতার জন্যই এই শব্দগুলি ব্যবহার করা হয়েছে বলে দাবি তাদের।

ইউটিউবে এই বিজ্ঞাপনের ভিডিওতে লাইক ও ডিজলাইক এর অপশনটি বন্ধ করে রাখা হয়েছে। কমেন্ট সেকশনও বন্ধ করে রাখা হয়েছে। তবে শেষ পর্যন্ত এই বিজ্ঞাপন মুছে দিয়ে এই পণ্য বয়কট করা হবে কিনা তা সময় বলতে পারবে।

লাল-নীল-গেরুয়া...! 'রঙ' ছাড়া সংবাদ খুঁজে পাওয়া কঠিন। কোন খবরটা 'খাচ্ছে'? সেটাই কি শেষ কথা? নাকি আসল সত্যিটার নাম 'সংবাদ'! 'ব্রেকিং' আর প্রাইম টাইমের পিছনে দৌড়তে গিয়ে দেওয়ালে পিঠ ঠেকেছে সত্যিকারের সাংবাদিকতার। অর্থ আর চোখ রাঙানিতে হাত বাঁধা সাংবাদিকদের। কিন্তু, গণতন্ত্রের চতুর্থ স্তম্ভে 'রঙ' লাগানোয় বিশ্বাসী নই আমরা। আর মৃত্যুশয্যা থেকে ফিরিয়ে আনতে পারেন আপনারাই। সোশ্যালের ওয়াল জুড়ে বিনামূল্যে পাওয়া খবরে 'ফেক' তকমা জুড়ে যাচ্ছে না তো? আসলে পৃথিবীতে কোনও কিছুই 'ফ্রি' নয়। তাই, আপনার দেওয়া একটি টাকাও অক্সিজেন জোগাতে পারে। স্বতন্ত্র সাংবাদিকতার স্বার্থে আপনার স্বল্প অনুদানও মূল্যবান। পাশে থাকুন।.

করোনাকালে বিনোদন দুনিয়ায় কী পরিবর্তন? জানাচ্ছেন, চলচ্চিত্র সমালোচক রত্নোত্তমা সেনগুপ্ত I