স্টাফ রিপোর্টার,বাঁকুড়া: কৃষি সমবায় সমিতির পরিচালন সমিতির বিরুদ্ধে নানা বেনিয়মের অভিযোগ তুলে ওই সমিতির অফিস ঘেরাও করে বিক্ষোভ দেখালেন সদস্যদেরই একাংশ। এমনকি বর্তমান পরিচালন সমিতির সদস্যদের পদত্যাগের দাবি জানালেন তারা। ঘটনাটি ঘটেছে শনিবার দুপুরে বাঁকুড়ার মেজিয়ার রাণীপুর সমবায় কৃষি উন্নয়ন সমিতিতে।

স্থানীয় সূত্রে খবর, ওই সমবায় সমিতির পরিচালন সমিতির নির্বাচন ঘিরে সদস্যরা বেশ কিছু দিন ধরেই সরব ছিলেন। সদস্যদের একাংশের দাবি, সম্পূর্ণ গায়ের জোরে, অগণতান্ত্রিক পদ্ধতিতে বর্তমান পরিচালন সমিতি গঠন করা হয়েছে। এমনকি অধিকাংশ সদস্যকে সম্পূর্ণ অন্ধকারে রেখে ওই পরিচালন সমিতি এককভাবে সিদ্ধান্ত নিচ্ছে বলে অভিযোগ। এরফলে সদস্যদের স্বার্থহানি হচ্ছে বলে দাবী জানিয়েছেন বিক্ষোভকারীরা।

আরও পড়ুন – খোদ মুখ্যমন্ত্রীর ফোনেই আড়ি পাতা হয়েছে, উঠল বিস্ফোরক অভিযোগ

বিক্ষোভে অংশগ্রহনকারী সদস্যদের পক্ষে জয়ন্ত চ্যাটার্জ্জী জানান, ৭২ জন সদস্যদের না জানিয়েই পরিচালন সমিতি গঠন করা হয়েছে। সম্পূর্ণ ব্যক্তিস্বার্থ চরিতার্থ করতেই এই কাজ করা হয়েছে বলে দাবি করেন তিনি। তিনি আরও বলেন, এই কমিটির বিরুদ্ধে তাঁরা অনাস্থা প্রস্তাব আনবেন। এবং প্রয়োজনে তারা আদালতের দ্বারস্থ হবেন বলেও জানান। স্থানীয় তৃণমূল নেতা সুভাষ মিশ্রও একই অভিযোগ করেন। তিনি বলেন, কাউকে না জানিয়ে বাড়িতে বসে এই কমিটি তৈরি করা হয়েছে। শস্যবীমার টাকা অনেকে পাননি বলে দাবি করে তিনি বলেন, এই ক্ষেত্রে রাজ্য সরকারের ভাবমূর্তি নষ্ট হচ্ছে। বিষয়টি নিয়ে সুবিচারের জন্য প্রয়োজনে তারা মুখ্যমন্ত্রীর কাছেও যেতে পারে বলেও জানিয়েছেন।

রাণীপুর সমবায় কৃষি উন্নয়ন সমিতির সভাপতি প্রহ্লাদ মিশ্র তার বিরুদ্ধে ওঠা সমস্ত অভিযোগ অস্বীকার করে বলেন, ‘সম্পূর্ণ রাজনৈতিক উদ্দেশ্য প্রণোদিতভাবে তার বিরুদ্ধে এই অপপ্রচার চলছে’। একই সঙ্গে শাসক দলের গোষ্ঠীদ্বন্দ এর পিছনে রয়েছে বলে তিনি দাবি করেন।