নয়াদিল্লি: ফের একবার ডোকলামের দিকে চিনের এগিয়ে আসার সম্ভাবনা তৈরি হয়েছে। স্যাটেলাইট ইমেজে ধরা পড়েছে সেই ছবি।

বছর দুয়েক আগেই এই ডোকলামে চিনের সড়ক নির্মাণ নিয়ে ভারত ও চিনের মধ্যে সংঘাত হয়। টানা বেশ কিছুদিন একে অপরের দিকে অস্ত্র তাক করে দাঁড়িয়েছিল দুই দেশের সেনাবাহিনী। পরে ভারত–চিনের মধ্যে কূটনৈতিক আলোচনার মাধ্যমে সমাধান হয়েছিল সেই সংঘাতের।

The Print-এ প্রকাশিত রিপোর্ট বলছে, দু’‌বছর পর আবারও মাথা চাড়া দিয়েছে সেই সমস্যা। ভুটানের পশ্চিমাংশের মালভূমি অঞ্চল ডোকা লাতে আবারও চীন সড়ক নির্মাণের কাজ শুরু করেছে। চিনা সেনাবাহিনীকেও সেখানে টহল দিতে দেখা গিয়েছে।

স্যাটেলাইট ছবিতে পুরো দৃশ্যটি দেখতে পাওয়া যাচ্ছে। যা নিয়ে ফের চিন্তা দেখা দিয়েছে ভারতের কপালে। ওই স্যাটেলাইট ছবিতে রাস্তার পাশাপাশি হেলিপোর্টও তৈরি করছে চিন। ২০১৭ সালে ৭২দিন ধরে ডোকালার ট্রাইজংশনে চিনা সেনা ঘাঁটি গেড়েছিল। ভারতীয় সেনা চিনের নির্মাণের কাজ বন্ধ করে দিলে অশান্তি চরমে পৌঁছায়।

জানা গিয়েছে, শিলিগুড়ি করিডরে ঢোকার কৌশল হিসাবে চিনা সেনারা এই ডোকলামে রাস্তা নির্মাণ করছিল। যাতে সহজে তারা ঝামফেরি রিজ হয়ে শিলিগুড়িতে ঢুকতে সফল হয়। ডোকলামে ভারত–চিনের এই উত্তেজনা সেই সময় গোটা বিশ্বের নজর কেড়েছিল। দুই সেনাবাহিনী মিসাইল–ট্যাংকারের মত ভারী অস্ত্র নিয়ে যুদ্ধের জন্য প্রায় প্রস্তুত হয়ে গিয়েছিল। তবে ৭২ দিন পর বেজিং ও দিল্লি অবশেষে সীমান্ত থেকে বাহিনী উঠিয়ে নেওয়ার সিদ্ধান্ত নেয়।

তবে দ্য প্রিন্টের স্যাটেলাইট ইমেজে দেখা গিয়েছে, ডোকলামে চিন ফের রাস্তা তৈরি করছে এবং সেনাদের কড়া টহলদারি চলছে। ইয়াটং ও টিসোনা সেক্টরে পিপল’‌স লিবারেশন আর্মিকে দেখা গিয়েছে। ওই সেক্টরে হেলিপ্যাড তৈরির কাজও করা হচ্ছে বলে দেখা গিয়েছে স্যাটেলাইট ছবিতে।