নয়াদিল্লি: বুথ ফেরৎ সমীক্ষার ফলাফলে উজ্জীবিত গেরুয়া শিবির৷ অমিত শাহের আমন্ত্রণে মঙ্গলবারই নৈশ ভোজের আয়োজনে ধরা পড়ল জোটবদ্ধ এনডিএর ছবি৷ কেন্দ্রীয়মন্ত্রী রাজনাথ সিং জানিয়ে দিলেন ‘এনডিএ দেশের স্তম্ভ’৷

ফলাফল কী হবে জানা নেই৷ কিন্তু সমীক্ষার ফলেই বিজেপি সহ এনডি শরিকরা ধরে নিয়েছে ফের ক্ষমতা দখল স্রেফ সময়ের অপেক্ষা৷ এদিনের বৈঠকে দেশের উন্নয়নে যেমন বেশ কয়েকটি প্রকল্প নিয়ে আলোচনা হয়েছে, তেমনই কড়া নিন্দা করা হয়েছে ভোট চলাকালীন পশ্চিমবঙ্গের রাজনৈতিক হিংসা নিয়ে৷ জানিয়েছেন কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী রাজনাথ সিং৷

বিজেপির সর্বভারতীয় সভাপতির ডাকে এদিনের নৈশ ভোজে কেন্ত্রীয় মন্ত্রীদের সংবর্ধনা দেওয়া হয়৷ দলের তরফে প্রধানমন্ত্রীকেও দেওয়া হয় সংবর্ধনা৷ সাফল্যের জন্য শরিক দলের মন্ত্রীদেরও বাহবা দেওয়া হয়৷ ভোটের ফলের আগে বৈঠক৷ সেখানে একদিকে যেমন উঠে এল, গত পাঁচ বছরের বিভিন্ন কাজের রূপায়ণ, আগামীর বিভিন্ন পরিকল্পনা নিয়ে৷ তেমনই গুরুত্ব পেয়েছে তৃণমূল ও বাম শাসিত বাংলা এবং কেরল নিয়েও৷

ভোজ শেষে কেন্দ্রীয় মন্ত্রী রাজনাথ সিং বলেন, ‘‘এনডিএ দেশকে এগিয়ে নিয়ে যাবে৷ দেশের নিরাপত্তায় বদ্ধপরিকর এনডিএ৷ প্রতিশ্রুতি পূরণ করেছে শাসক জোট৷ মানুষ ভরসা রেখেছে৷ আগামী পাঁত বছর আরও দ্রুততার সঙ্গে কাজ করতে হবে৷’’

বালাকোটে এয়ারস্ট্রাইক ছিল শাসক জোটের এবারের নির্বাচনের অন্যতম প্রচারের ইস্যু৷ গেরুয়া দলের অভ্যন্তরে কান পাতলেই শোনা যাচ্ছে সন্ত্রাস দমনে কড়া পদক্ষেপের কারণেই মানুষের আস্থা তাদের দিকে গিয়েছে৷ এনডিএর এদিনের আলোচনায় উঠে আসে সেই সন্ত্রাস দমনে সফলতার কথাও৷ রাজনাথ বলেন, ‘‘’’সন্ত্রাস দমনে আগামী দিনে আরও কড়া পদক্ষেপ নেবে সরকার৷’’

বৈঠকে এদিন তাঁর সরকারের মন্ত্রীদের প্রশংসা করেন নরেন্দ্র মোদী৷ বিদায়ী মন্ত্রীসভার সদস্য নরেন্দ্র সিং তোমার সাংবাদিকদের বলেন, ‘‘নৈশভোজে প্রধানমন্ত্রী বলেছেন এবারের লোকসভা নির্বাচন ছিল তাঁর কাছে তীর্থ যাত্রার মত৷ মোদী বৈঠকে বলেছেন, তিনি বহু নির্বাচন, ভোটের প্রচার দেখেছেন৷ কিন্তু এবারেরটা অতীতের সব রেকর্ড ছাপিয়ে গিয়েছে৷’’

শিয়রে ক্ষমতার হাতছানি৷ ভোটের আগে শরিকদের সঙ্গে তীক্ততা এখন অতীত৷ প্রচারেই স্পষ্ট হয়েছিল বাংলা এবার বিজেপির টার্গেট৷ এদিনের আলোচতনাতেই উঠে এসেছে বাংলার রাজনৈতিক হিংসার কথা৷ বর্ষিয়ান রাজনাথ সিংয়ের কথাতেও তার রেশ৷ এবারের বুথ ফেরৎ সমীক্ষাতেও পশ্চিমবঙ্গে ভালো ফল করতে চলেছে পদ্ম বাহিনী৷ তাই ঘর গুছোতে কোমড় বাঁধছে মোদী-শাহ জুটি৷