মুম্বই: স্ত্রীর থেকে ডিভোর্সের আইনি নোটিশ পেয়েছেন অভিনেতা নওয়াজউদ্দিন সিদ্দিকি। স্ত্রী আলিয়া সিদ্দিকির অভিযোগ ১০ বছরের বৈবাহিক জীবন মোটেই ভালো ছিল না। মানসিক ভাবে অত্যাচার করতেন নওয়াজ। সম্প্রতি এক সর্বভারতীয় সংবাদমাধ্যমের কাছে আলিয়া জানিয়েছেন, অভিনেতা মনোজ বাজপেয়ীর সামনেও নওয়াজ তাঁকে অপমান করেছিলেন।

আলিয়ার আরও অভিযোগ, জনসমক্ষে আলিয়াকে এড়িয়ে চলতেন নওয়াজ। এমনকি, তাঁদের সন্তানরা নওয়াজের সঙ্গে দেখা করতে চাইলেও, কোনও একটা অজুহাত দিয়ে সেগুলি এড়িয়ে যেতেন অভিনেতা। একের পরে এক অভিযোগ উঠে আসছে নওয়াজের বিরুদ্ধে।

আলিয়া বলছেন, “আমি বাচ্চাদের কিছু বলিনি। যদিও ওরা মন খারাপ করে আর আমায় জিজ্ঞাসা করে, বাবা কোথায়! কোথায় শ্যুটিং করছে। আর আমি বলতে থাকি, তোমাদের বাবা নিউইয়র্ক, ইংল্যান্ডে শ্যুটিং করছে। কিন্তু কত বছর ধরে এসব বলা যায়। মুম্বইয়ের অফিসে থাকা সত্ত্বেও বাচ্চাদের দেখতে আসেনি। বলত, ব্যস্ত আছি, কাজ আছে। তাই বাচ্চাদের এই মিথ্যে বলতে বাধ্য হতাম।”

মনোজ বাজপেয়ীর সামনেও অপমানের ঘটনাটি জানান তিনি। আলিয়া বলছেন, “কয়েকজন সেলেব্রিটিরা আমাদের বাড়িতে এসেছিলেন। যেমন একদিন মনোজ বাজপেয়ী আসেন। সেদিনও আমায় অপমান করে নওয়াজ। আমি নওয়াজের জন্য রান্না করছিলাম। তার পরে মনোজের সঙ্গে কথা বলতে শুরু করি। তখন নওয়াজ আমায় বলে, তুমি কথা বলতে জানো না। তাই লোকের সামনে কথা বলতে হবে না তোমায়।”

আলিয়া আরও জানিয়েছেন, ১০ বছর বৈবাহিক জীবন হলেও, বিয়ের পরেই শুরু হয়েছিল তাদের মধ্যে সমস্যা। বিগত ৪-৫ বছর ধরে তাঁরা আলাদাই রয়েছেন। আলিয়া জানাচ্ছেন, বিয়ের পরেই তিনি বুঝে গিয়েছিলেন নওয়াজ ও তাঁর দাদা কেউ মহিলাদের সম্মান করে কথা বলতে জানেন না। কথায় কথায় অপমানিত হতে হতো তাঁকে।নওয়াজ খুব চিৎকার চেঁচামেচি করতেন। কিন্তু কখনো গায়ে হাত তোলেন নি। তবে নওয়াজের দাদা তাঁকে মারধর করেছেন বলেনওয়াজের দাদা কাকে মারধর করেছেন বলে অভিযোগ আলিয়ার।

আলিয়া জানিয়েছেন,নওয়াজের পরিবারে এটা আগেও হয়েছে। বাড়ির বউদের উপর তারা নাকি এভাবেই অত্যাচার করে। যার জন্য তাদের পরিবারের উপর রয়েছে সাতটি মামলার দায়। আলিয়ার কথায়, নওয়াজউদ্দিন অভিনেতা হিসেবে বড় মাপের হলেও, মানুষ হিসেবে তা কেন হতে পারেননি! নিজের সন্তানদের সঙ্গে শেষ কবে দেখা করেছেন তাও হয়তো তার মনে নেই। আর তাই সন্তানদেরকে নিজের কাছেই রাখতে চান আলিয়া। আলিয়া বলছেন, “ওদের আমি বড় করেছি। তাই ওরা আমার কাছেই থাকবে।”

পপ্রশ্ন অনেক: চতুর্থ পর্ব

বর্ণ বৈষম্য নিয়ে যে প্রশ্ন, তার সমাধান কী শুধুই মাঝে মাঝে কিছু প্রতিবাদ