নয়াদিল্লি: ভারতের দীর্ঘদিনের অভিযোগে সিলমোহর পড়েছে৷ মুম্বই সন্ত্রাসের সঙ্গে পাক যোগের যে অভিযোগ দীর্ঘদিন ধরে ভারত করে আসছে, তা যে একপ্রকার সঠিক, সেই ইঙ্গিতই মিলল৷ প্রাক্তন পাক প্রধানমন্ত্রী নওয়াজ শরিফের বক্তব্যের রেশ ধরে একথা জানান প্রতিরক্ষামন্ত্রী নির্মলা সীতারমণ৷

ভারত তার নিজের অবস্থানে অনড় থেকে বুঝিয়ে দিয়েছে, যে তারা সঠিক পথেই হেঁটেছে৷ প্রতিরক্ষামন্ত্রী এদিন বলেন, শরিফের মন্তব্য ভারতের জন্য যথেষ্ট গুরুত্বপূর্ণ৷

কারণ হিসেবে প্রতিরক্ষামন্ত্রী জানান, দীর্ঘদিন ধরেই ভারত ঠিক এই কথাই বলে আসছিল৷ পাকিস্তান প্রত্যক্ষ ভাবে মুম্বাই সন্ত্রাসের সঙ্গে জড়িত, শরিফের বক্তব্য  ভারতের অবস্থানকেই স্পষ্ট ও সঠিক প্রমাণ করল৷ শনিবার দ্য ডন পত্রিকায় সাক্ষাৎকার দিয়ে শরিফ বলেন এই জঙ্গি হামলা চাইলে আটকাতে পারত পাকিস্তান সরকার৷ তবে কিছুটা ইচ্ছাকৃত ভাবেই তা ঠেকানো হয়নি৷ পাকিস্তান সন্ত্রাসবাদকে মদত দিয়ে যে পথে এগোচ্ছে, তাতে তারা নিজেরাই একঘরে হয়ে পড়ছে, এর জন্য দায়ী সবথেকে বেশি তারা নিজেরা বলেই এদিন মত ব্যক্ত করেন প্রাক্তন পাক প্রধানমন্ত্রী৷

পাকিস্তানের নেতিবাচক ভাবমূর্তি, যা বিশ্বের কাছে রয়েছে, তা পালটানো দরকার বলে মনে করেন আজীবন নির্বাচন থেকে বহিষ্কৃত হওয়া এই পিএমএলএন নেতা৷ পাকিস্তান কীভাবে সন্ত্রাসবাদের বিরুদ্ধে লড়ছে তা বিশ্বের জানা উচিত বলেও মনে করেন তিনি৷ কিন্তু পাকিস্তানের এই লড়াই বিশ্বের কাছে সঠিক বার্তা তুলে দিচ্ছে না কারণ পাকিস্তান সঠিক পথে লড়ছে না৷ এই বক্তব্যের সারাংশ তুলে ধরে ধরে সীতারমণ বলেন ২৬/১১ মুম্বই হামলায় ভারতের প্রচুর ক্ষতি হয়েছে৷ তা পূরণ করা যাবে না৷ তবে পাকিস্তান সন্ত্রাসবাদের সবথেকে বড় শিকার, তা মানা যায়নি৷ এটা ওদের নাটক৷