নয়াদিল্লি: দেশের রায়ে ফের দিল্লির তখতে বসতে চলেছে নরেন্দ্র মোদী৷ দ্বিতীয়বার প্রধানমন্ত্রী হওয়ার জন্য ইতিমধ্যেই রাষ্ট্রপতির কাছে পদত্যাগ পত্র জমা দিয়েছেন তিনি৷ আজ বিকেলে এনডিএ শরিকদের সঙ্গে বৈঠকে বসতে চলেছেন প্রধানমন্ত্রী৷ শরিক নেতারা সেখানেই ফের তাঁকে বেছে নেবেন শাসক জোটের নেতা হিসাবে৷

অন্যদিকে, দিল্লিতেই বসছে বিজেপির জয়ী প্রার্থীদেরও বৈঠক৷ বাংলা থেকে দিল্লি পৌঁছে গিয়েছেন ১৮ গেরুয়া সাংসদও৷ বিজেপি নবনির্বাচিত প্রার্থীরা মোদীকে সংসদীয় দলের নেতা নির্বাচন করবেন৷

আরও পড়ুন: বছর শেষেই তৃণমূল সরকার শেষ: অর্জুন সিং

এদিন বিকেলে পার্লামেন্টের সেন্ট্রাল হলে হবে বৈঠক৷ মোদীই যে ফের এনডিএর প্রধানমন্ত্রী পদপ্রার্থী তার আনুষ্ঠানিক অনুমোদন দেবেন শরিক নেতারা৷ সূত্রের খবর, শরিক দল থেকে কে কটা পূর্ণ ও রাষ্ট্রমন্ত্রী পদ পাবেন তাও এদিনের আলোচনায় উঠে আসতে পারে৷

সূত্রের খবর, শরিকদের মধ্যে শিবসেনা তিনটি পূর্ণ মন্ত্রক পেতে পারেন৷ বিহারে ‘মহাগঠবন্ধন’ মুখ থুবড়ে পড়েছে৷ নীতীশ কুমারের জেডিইউ ও বিজেপি ভালো ফল করেছে৷ ফলে তাদের ঝুলিতেও যেতে পারে তিনটি মন্ত্রী পদ৷ এর মধ্যে হয়তো দু’টি পূর্ণমন্ত্রী পদ পাবে জেডিইউ৷

পাসোয়ানের দলের জন্য বরাদ্দ একটি মন্ত্রীত্ব পদ৷ দেখার রামবিলাস পাসোনান নিজেই তা গ্রহণ করেন, নাকি ছেলে চিরাগকে এগিয়ে দেবেন মন্ত্রীত্বের জন্য৷ জানা গিয়েছে উত্তর পূর্বের রাজ্যগুলিতে আঞ্চলিক শক্তিগুলির সঙ্গে জোট বেঁধে লাভ হয়েছে গেরুয়া শিবিরের৷ ফলে ছোট শরিকদের থেকেও কয়েকজনকে রাষ্ট্রমন্ত্রী করা হতে পারে৷

আরও পড়ুন: যে দশ কারণে মোদী ফিরলেন গদিতে

মোদী ম্যাজিক অব্যাহত দেশজুড়ে৷ ৩০৩ আসন পেয়েছে বিজেপি৷ এনডিএ পেয়েছে ৩৫৩ আসন৷ এই অবস্থায় মোদী একাই বারাণসী থেকে জিতেছেন প্রায় সাড়ে চার লক্ষ ভোটের ব্যবধানে৷

৩০ মে দ্বিতীয়বার প্রধানমন্ত্রী হিসাবে শপথ নেবেন মোদী৷ তাই প্রধানমন্ত্রী পদ থেকে ইস্তফা দেন৷ শুক্রবার রাষ্ট্রপতি রামনাথ কোবিন্দ তাঁর ইস্তফাপত্র গ্রহণ করেন৷ শপথ নেওয়ার আগে হাতে বেশ কিছু সময় রয়েছে নমোর৷ এই সময়ের মধ্যে বেশ কিছু জায়গায় যাওয়ার ইচ্ছা প্রকাশ করেন তিনি৷ যার মধ্যে রয়েছে বারাণসী এবং গুজরাত৷

আরও পড়ুন: ফের গোরক্ষকদের তাণ্ডব, মহিলা সহ তিন সংখ্যালঘুকে বেধড়ক মার

দলীয় সূত্রে খবর, আগামী ২৮মে মোদী যেতে পারেন বারাণসীতে৷ করবেন বিশাল রোড শো৷ তারপর গঙ্গা আরতিতে অংশ নেবেন৷ মোদীর এই সফর ঘিরে উত্তরপ্রদেশ বিজেপির মধ্যে ব্যস্ততা তুঙ্গে৷ ঐতিহাসিক জয়ের পর প্রথম রোড শো মোদীর৷ রোড শো মেগা হিট করার দায়িত্ব কাধে তুলে নিয়েছে যোগী ব্রিগেড৷

বারাণসীর আগে ২৬মে নিজের রাজ্য গুজরাত যাবেন মোদী৷ গতবারের মতো এবারও গুজরাতবাসী তাঁকে রাজ্যের ২৬টি আসন উপহার দিয়েছে৷ তাই গুজরাতবাসীর সাথে দেখা করে ধন্যবাদ জানাতে চান তিনি। এই সফরে বেড়িয়েই গুজরাতের গান্ধীনগরে নিজের বাড়ি গিয়ে মা হীরাবেন মোদীর সঙ্গে দেখা করে আসবেন তিনি।