নাপোলি: অগাস্টে প্রথম লেগের ম্যাচে ঘরের মাঠে উত্তেজক ম্যাচে ৪-৩ জয় তুলে নিয়েছিল জুভেন্তাস। রবিবার ফিরতি লেগের ম্যাচে নিজেদের ঘরের মাঠে প্রথম লেগে হারের বদলা নিল নাপোলি। টানা আট ম্যাচে গোল পেলেন ক্রিশ্চিয়ানো রোনাল্ডো। তবু পর্তুগিজ সুপারস্টারের শেষ মুহূর্তের গোল এদিন কাজে এল না। নাপোলির কাছে ১-২ গোলে হেরে চলতি মরশুমে লিগে দ্বিতীয় হারের মুখ দেখলো মৌরিজিও সারির দল। টানা পাঁচ ম্যাচে জয়ের পর থামল তাদের বিজরথও।

অগাস্টে প্রথম লেগের ম্যাচে প্রথমার্ধে ২০ মিনিটের মধ্যেই ২-০ এগিয়ে গিয়েছিল ডিফেন্ডিং চ্যাম্পিয়নরা। যদিও জয়ের জন্য শেষ মুহূর্তে আত্মঘাতী গোল অবধি অপেক্ষা করতে হয়েছিল রনাল্ডোদের। কিন্তু এদিন নাপোলির ঘরের মাঠে প্রথমার্ধ জুড়ে ইতিবাচক সুযোগ তৈরিতে ব্যর্থ দুই দল। স্বাভাবিকভাবেই প্রথমার্ধ জুড়ে কোনও শটই অন-টার্গেট রাখতে পারেননি দু’দলের ফুটবলাররা। এরইমধ্যে প্রথমার্ধের শেষদিকে কড়া ট্যাকলে চোট পেয়ে বসেন জুভের নির্ভরযোগ্য মিডফিল্ডার মিরালেম পিয়ানিচ।

দ্বিতীয়ার্ধে বসনিয়া-হার্জেগোভিনার মিডিওর পরিবর্তে মাঠে নামেন র‍্যাবিয়ট। ৫৩ মিনিটে ক্রিশ্চিয়ানো রোনাল্ডো বল জালে রাখলেও অফসাইডের কারণে তা বাতিল হয়ে যায়। গোলের কাছে পৌঁছে গিয়েছিলেন জুভের আর্জেন্তাইন স্ট্রাইকার গঞ্জালো হিগুয়েন। কিন্তু তাঁর শট রক্ষা করেন নাপোলি দুর্গের শেষ প্রহরী অ্যালেক্স মেরেট। এভাবেই ধীরে ধীরে জুভেন্তাস ম্যাচে আধিপত্য বিস্তারের চেষ্টা করলেও ৬৩ মিনিটে ডেডলক ভাঙে নাপোলি। ইনসিগনের ২৫ গজ দূরের শট জুভে গোলরক্ষক সেজনি বাঁ-দিকে ঝাঁপিয়ে পড়ে রক্ষা করলেও ওত পাতা শিকারীর মত ফিরতি বল জালে রাখেন জেইলিনস্কি।

৮৩ মিনিটে ইনসিওরেন্স গোল তুলে নিয়ে জুভেন্তাসকে ব্যাকফুটে ঠেলে দেয় নাপোলি। ডানপ্রান্তিক ক্রস দর্শনীয় সাইড ভলিতে জালে জড়িয়ে নাপোলির তিন পয়েন্ট কার্যত নিশ্চিত করে ফেলেন ইনসিগনে। যদিও ৯০ মিনিটে লম্বা থ্রু বল ধরে একটি গোলের ব্যবধান কমিয়ে আনেন ক্রিশ্চিয়ানো। কিন্তু সমতায় ফেরার মত সময় আর বাকি ছিল না গতবারের চ্যাম্পিয়নদের হাতে। তাই টানা আট ম্যাচে পর্তুগিজ তারকার গোলের পর হারের মুখ দেখতে হল জুভেন্তাসকে। তবে হারের পরও লিগের শীর্ষেই রইল সারির দল।

উল্লেখ্য, সিরি-‘এ’র টানা সাত ম্যাচে স্কোরশিটে নাম তুলে গত ম্যাচেই কিংবদন্তি মিশেল প্লাতিনি ও রবার্তো বেত্তেগাকে ছুঁয়েছিলেন। স্বাভাবিকভাবেই এদিন তাঁদেরকে ছাপিয়ে নয়া রেকর্ড সেট করলেন ক্রিশ্চিয়ানো। ২১ ম্যাচে ৫১ পয়েন্ট নিয়ে শীর্ষে রোনাল্ডরা। ৪৮ পয়েন্ট নিয়ে দ্বিতীয়স্থানে থাকা ইন্টার মিলানের সঙ্গে ব্যবধান যদিও কমল কিছুটা।