হায়দরাবাদ: অন্ধ্রপ্রদেশের নতুন রাজধানী অমরাবতীকে সাজাতে সিঙ্গাপুরের দ্বারস্থ মুখ্যমন্ত্রী এন চন্দ্রবাবু নাইডু। সোমবারই তিনি সিঙ্গাপুর গিয়েছেন। দুদিন থাকবেন। এই দুদিনে সিঙ্গাপুর সরকারি এজেন্সির সঙ্গে বৈঠক করবেন।

অন্ধ্রপ্রদেশ মুখ্যমন্ত্রীর দফতর সূত্রে জানা গিয়েছে, সিঙ্গাপুরের একাধিক সংস্থার সঙ্গে এ ব্যাপারে আগেই কথা বলেছেন মুখ্যমন্ত্রী। সবাইকেই তাঁদের পরিকল্পনা এবং নকশা পাঠাতে বলা হয়েছে। বেশ কয়েকটি সংস্থা নগরের সৌন্দর্যায়নের ব্লু প্রিন্ট পাঠিয়েও দিয়েছে। সেগুলি খতিয়ে দেখবেন মুখ্যমন্ত্রী। আাগামী ৬ থেকে ৮ সপ্তাহের মধ্যেই চূড়ান্ত হয়ে যাবে নতুন রাজধানী কেমন দেখতে হবে। মুখ্যমন্ত্রীর সঙ্গে একটি বিশেষজ্ঞ দলও সিঙ্গাপুর সফরে গিয়েছে। মুখ্যমন্ত্রী ফিরে আসার পরেই সিঙ্গাপুরের দল অন্ধ্রপ্রদেশে এসে অমরাবতী ঘুরে দেখবেন বলে জানানো হয়েছে। জানা গিয়েছে, রাজ ভবন, বিধানসভা ভবন, সচিবালয়, হাই কোর্ট নতুন করে তৈরি করা হবে। এর জন্য ২০১০ কোটি টাকা বরাদ্দ করা হয়েছে।

লাল-নীল-গেরুয়া...! 'রঙ' ছাড়া সংবাদ খুঁজে পাওয়া কঠিন। কোন খবরটা 'খাচ্ছে'? সেটাই কি শেষ কথা? নাকি আসল সত্যিটার নাম 'সংবাদ'! 'ব্রেকিং' আর প্রাইম টাইমের পিছনে দৌড়তে গিয়ে দেওয়ালে পিঠ ঠেকেছে সত্যিকারের সাংবাদিকতার। অর্থ আর চোখ রাঙানিতে হাত বাঁধা সাংবাদিকদের। কিন্তু, গণতন্ত্রের চতুর্থ স্তম্ভে 'রঙ' লাগানোয় বিশ্বাসী নই আমরা। আর মৃত্যুশয্যা থেকে ফিরিয়ে আনতে পারেন আপনারাই। সোশ্যালের ওয়াল জুড়ে বিনামূল্যে পাওয়া খবরে 'ফেক' তকমা জুড়ে যাচ্ছে না তো? আসলে পৃথিবীতে কোনও কিছুই 'ফ্রি' নয়। তাই, আপনার দেওয়া একটি টাকাও অক্সিজেন জোগাতে পারে। স্বতন্ত্র সাংবাদিকতার স্বার্থে আপনার স্বল্প অনুদানও মূল্যবান। পাশে থাকুন।.

করোনা পরিস্থিতির জন্য থিয়েটার জগতের অবস্থা কঠিন। আগামীর জন্য পরিকল্পনাটাই বা কী? জানাবেন মাসুম রেজা ও তূর্ণা দাশ।