নিউইয়র্ক: মরশুমের শেষ গ্র্যান্ড স্ল্যাম থেকে রজার ফেডেরার ও নোভাক জকোভিচ বিদায় নিলেও সেমিফাইনালে পৌঁছলেন রাফায়েল নাদাল৷ ফাইনালে ওঠার লড়াইয়ে নাদালের প্রতিদ্বন্দ্বী বিশ্বের মাতেও বেরেত্তিনি৷ গ্যালারিতে বসে নাদালের খেলা দেখেন স্প্যানিশ ফুটবল তারকা জেরার্ড পিকে৷ পাশে ছিলেন তাঁর পপ স্টার স্ত্রী শাকিরা৷

বৃহস্পতিবার আর্থার অ্যাশ স্টেডিয়ামে কোয়ার্টার ফাইনালে আর্জেন্তাইন প্রতিদ্বন্দ্বী দিয়েগো সোয়ার্ৎম্যানকে স্ট্রেট গেমে (৬-৪,৭-৫,৬-২) হারিয়ে শেষ চারে ওঠেন তিনবারের ফ্লাশিং মেডো চ্যাম্পিয়ন স্প্যানিশ তারকা৷ তবে ৩৩তম গ্র্যান্ড স্ল্যাম সেমিফাইনালে ওঠার পথে যথেষ্ট ঘাম ঝড়াতে হয় রাফাকে৷ প্রথম দু’টি দারুণ লড়াই করেন আর্জেন্তাইন খেলোয়াড়৷ দ্বিতীয় সেট গড়াই টাইব্রেকারে৷

শেষ আটের লড়াইয়ে হেরে ইউএস ওপেন থেকে বিদায় নিয়েছেন ফেডেরার৷ চতুর্থ রাউন্ডে চোটের জন্য ম্যাচ ছেড়ে দেন বিশ্বের এক নম্বর খেলোয়াড় জকোভিচও৷ ফ্যাব থ্রি-র মধ্যে শেষ চারে পৌঁছলেন একজনই৷ ফলে টানা ৬২টি মেজর টুর্নামেন্টে তিন জনের মধ্যে অন্তত একজন সেমিফাইনালে পৌঁছলেন৷ শেষ ১১টি গ্র্যান্ড স্ল্যাম ট্রফি হাত উঠেছে এই তিন জনের মধ্যে৷ এবার ফ্লাশিং মেডোয় ট্রফি জয়ের অন্যতম দাবিদার নাদালই৷ কেরিয়ারে ১৯তম গ্র্যান্ড স্ল্যাম ট্রফি জয় থেকে মাত্র দু’কদম দূরে রাফা৷

সেমিফাইনালে নাদাল খেলবেন ইতালির বছর তেইশের বেরেত্তিনির বিরুদ্ধে৷ ১৯৭৭-এর পর ইউএস ওপেনে ইতালির কোনও পুরুষ খেলোয়াড় হিসেবে শেষ চারে পৌঁছলেন৷ কোয়ার্টার ফাইনালে মনফিলসকে পাঁচ সেটের (৩-৬,৬-৩,৬-২,৩-৬,৭-৬) লড়াইয়ে হারিয়ে সেমিফাইনালে পৌঁছন বেরেত্তিনি৷

মরশুমের শেষ গ্র্যান্ড স্ল্যামের দ্বিতীয় সেমিফাইনালে মুখোমুখি বিশ্বের পাঁচ নম্বর দানিল মেডভেডেভ ও ৭৮ নম্বর গ্রিগর দিমিত্রভের৷ কোয়ার্টার ফাইনালে ফেডেরারকে হারিয়ে শেষ চারে জায়গা করে নেন দিমিত্রভ৷ ১৯৯১-এর পর সবচেয়ে কম ব়্যাংকিং খেলোয়াড় হিসেবে ইউএস ওপেনের সেমিফাইনালে উঠলেন বুলগেরিয়ার এই খেলোয়াড়৷