কলকাতা: সল্টলেকে মা ও মেয়ের জোড়া মৃতদেহ উদ্ধার ঘিরে চাঞ্চল্য৷ তদন্তে নেমেছে বিধাননগর উত্তর থানার পুলিশ৷

জানা গিয়েছে,সল্টলেক বি ই ব্লকের একটি বাড়ি থেকে মা ও মেয়ের জোড়া মৃতদেহ উদ্ধার হয়েছে৷ একই বাড়ির দু’টি আলাদা ঘর থেকে দু’জনের মৃতদেহ উদ্ধার করা হয়৷ মৃত পাপিয়া দে (৭৯) ও তার মেয়ে শর্মিষ্ঠা কর পুরকায়স্থ(৬০)৷ মৃতরা হল রাজ্যের প্রাক্তন ডিজিপি এবং বর্তমানে রাজ্যের নিরাপত্তা উপদেষ্টা সুরজিৎ কর পুরকায়স্থের প্রাক্তন স্ত্রী ও শাশুড়ি৷

পুলিশ সূত্রে খবর,মৃতদের আত্মীয়েরা গত দু’দিন ধরে ফোন করে খোঁজ পাচ্ছিলেন না৷ এরপরই শনিবার রাতে তারা পুলিশকে জানান৷ খবর পেয়ে বিধাননগর উত্তর থানার পুলিশ ঘটনাস্থলে পৌঁছায়৷ সেখানে গিয়ে দেখতে পান ঘরের দরজা ভিতর থেকে বন্ধ রয়েছে৷ পুলিশ ওই ঘরের দরজা ভেঙে মৃতদেহ উদ্ধার করে৷

জোড়া মৃতদেহ প্রথমে বিধাননগর মহকুমা হাসপাতালে পাঠানো হয়৷ পরবর্তীকালে ময়নাতদন্তের জন্য আর জি কর হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে৷ কীভাবে তাদের মৃত্যু হয়েছে তা খতিয়ে দেখছে পুলিশ৷

প্রাথমিক ভাবে দেখে দু’জনের কারও দেহে আঘাতের কোনও চিহ্ন মিলেনি৷ তবে শর্মিষ্ঠাদেবীর মুখে সামান্য গ্যাঁজলা ছিল বলে জানা গিয়েছে৷ আত্মহত্যা না অন্য কোনও কারনে মৃত্যু হয়ে তাও খতিয়ে দেখছে তদন্তকারী অফিসাররা৷ তবে কোনও সুইসাইড নোট পাওয়া যায়নি।

হাসপাতাল সূত্রে খবর, চিকিৎসকরা প্রাথমিকভাবে মনে করছেন মৃত মা ও মেয়ে বেশ কিছুদিন ধরে জ্বর, সর্দি, কাশির কারণে শারীরিকভাবে অসুস্থ ছিলেন৷ করোনায় মৃত কিনা তাও খতিয়ে দেখা হচ্ছে৷

প্রশ্ন অনেক-এর বিশেষ পর্ব 'দশভূজা'য় মুখোমুখি ঝুলন গোস্বামী।