নয়াদিল্লি: বিতর্কিত ওয়েব সিরিজ ‘স্যাক্রেড গেমস’ নিয়ে মুখ খুললেন কংগ্রেস সভাপতি রাহুল গান্ধী৷ জানিয়ে দিলেন, কাল্পনিক ওয়েব সিরিজের কোনও চরিত্র প্রাক্তন প্রধানমন্ত্রী রাজীব গান্ধীর দেশের প্রতি অবদানকে মুছে দিতে পারবে না৷ এ দিন টুইট করে রাহুল লেখেন, ‘‘তাঁর বাবা রাজীব গান্ধী আজীবন দেশের জন্য কাজ করে গিয়েছেন৷ দেশের জন্য প্রাণ ত্যাগ করেছেন৷ কোনও কাল্পনিক ওয়েব সিরিজ তাঁর সেই অবদানকে ভুলিয়ে দিতে পারবে না৷’’

মত প্রকাশের স্বাধীনতা নিয়েও ট্যুইটে বিজেপি ও আরএসএসকে খোঁচা মারেন রাহুল৷ লেখেন, ‘‘বিজেপি ও আরএসএস মত প্রকাশকে নিয়ন্ত্রণে রাখতে চায়৷ আমি বিশ্বাস করি মত প্রকাশের স্বাধীনতা এক জন মানুষের গণতান্ত্রিক অধিকার৷ আমার বাবা দেশের জন্য কাজ করে গিয়েছেন৷ দেশের জন্য প্রাণ দিয়েছেন৷ কাল্পনিক একটি ওয়েব সিরিজের কোনও চরিত্র সেই সত্যিটা মুছে দিতে পারবে না৷’’

প্রসঙ্গত, ৬ জুলাই নেটফ্লিক্সে মুক্তি পায় অনুরাগ কাশ্যপ ও বিক্রমাদিত্য মোটওয়ানি পরিচালিত ওয়েব সিরিজ ‘স্যাক্রেড গেমস’৷ সইফ আলি খান ও নওয়াজুদ্দিন সিদ্দিকি অভিনীত এই ওয়েব সিরিজ মুক্তির পর থেকেই বিতর্কের কেন্দ্রে৷ ওয়েব সিরিজে নওয়াজুদ্দিন সিদ্দিকি গণেশ গাইতন্ডে নামে মুম্বইয়ের এক ডনের চরিত্রে অভিনয় করেছেন৷ একটি দৃশ্যে তাঁকে বোফর্স কেলেঙ্কারি নিয়ে প্রাক্তন প্রধানমন্ত্রী রাজীব গান্ধীকে কটাক্ষ করতে দেখা গিয়েছে বলে অভিযোগ৷ এই নিয়ে অভিনেতা, নেটফ্লিক্স ও প্রযোজনা সংস্থার বিরুদ্ধে থানায় অভিযোগও দায়ের রাজীব সিনহা নামে এক কংগ্রেস কর্মী৷

অপরদিকে বুধবার দিল্লি হাইকোর্টে একটি পিটিশন দাখিল করে ওয়েব সিরিজ থেকে বিতর্কিত কিছু দৃশ্য বাদ দেওয়ার দাবি জানানো হয়৷ তাতে দাবি করা হয় ওই দৃশ্যগুলি প্রাক্তন প্রধানমন্ত্রী রাজীব গান্ধীর ভাবমূর্তিকে নষ্ট করছে৷ প্রসঙ্গত ২০০৬ সালে বিক্রম চন্দ্রার থ্রিলার উপন্যাসের উপর ভিত্তি করে এই ওয়েব সিরিজটির গল্প বুনেছেন পরিচালক৷