স্টাফ রিপোর্টার, বাঁকুড়া: রাতে পিকনিক করার নাম করে ডেকে খুনের অভিযোগ উঠল এক ব্যবসায়ীর বিরুদ্ধে। মৃতের নাম সুধীর গড়াই৷ সোমবার সন্ধ্যায় মৃতের স্ত্রী সহ এলাকাবাসী অভিযুক্তের শাস্তির দাবিতে মৃতদেহ আগলে রেখে থানা ঘেরাও করে। একই সঙ্গে অভিযুক্ত ব্যবসায়ীর শাস্তির দাবি করে পুলিশের দ্বারস্থ হন মৃতের স্ত্রী। ঘটনাটি ঘটেছে বাঁকুড়ার বেলিয়াতোড় গ্রামে৷

বেলিয়াতোড়ের ঝুম্পা গড়াইয়ের অভিযোগ, রবিবার রাতে তার স্বামী সুধীর গড়াইকে স্থানীয় ব্যবসায়ী হীরেন গড়াই নিজের দোকান ঘরে পিকনিক করার নাম করে ডেকে নিয়ে যায়। তারপর সারা রাত সুধীর গড়াই বাড়ি ফেরেননি। পরে সোমবার সকালে স্বামী সুধীর গড়াইয়ের মৃত্যুর খবর পান বলে ঝুম্পা গড়াই। এমনটাই অভিযোগ করেছেন তিনি৷ এদিন ঝুম্পা গড়াই তার স্বামী সুধীর গড়াইকে ব্যবসায়ী হীরেন গরাই কিছু লোকের সহযোগিতায় পরিকল্পিত ভাবে খুন করেছে বলে বেলিয়াতোড় থানায় লিখিত অভিযোগ দায়ের করেন। এই ঘটনায় এলাকায় ব্যাপক চাঞ্চল্য ছড়িয়েছে।

আরও পড়ুন: কৃষ্ণেন্দুনারায়ণ চৌধুরির অফিসের পাশে বোমাতঙ্ক!

স্থানীয়েরা মৃতের স্ত্রী সন্তানকে সঙ্গে নিয়ে মৃতদেহ আটকে রেখে বিক্ষোভ দেখানোর পাশাপাশি থানা ঘেরাও করে রাখেন। মৃত সুধীর গড়াইয়ের স্ত্রী ঝুম্পা গড়াই বলেন, বলা হচ্ছে তার স্বামীর দুর্ঘটনায় মৃত্যু হয়েছে। দুর্ঘটনার কারণেই বেলিয়াতোড় হাসপাতালে ভরতি করা হয়েছিল তাকে। কিন্তু বাড়ির সামনে দুর্ঘটনা ঘটলেও এই খবর তাদের আগে জানানো হয়নি বলে তিনি দাবি করেন। সর্বশেষ পাওয়া খবরে জানা গিয়েছে, পুলিশ এই ঘটনায় লিখিত অভিযোগের ভিত্তিতে একজনকে আটক করে জিজ্ঞাসাবাদ শুরু করেছে।

প্রশ্ন অনেক-এর বিশেষ পর্ব 'দশভূজা'য় মুখোমুখি ঝুলন গোস্বামী।