কলকাতা: শহরে এল মুম্বই পুলিশ। বুধবার সকালে মুম্বই পুলিশের একটি দল কলকাতায় এসেছে। মঙ্গলবারই তারা কলকাতা পুলিশের সঙ্গে তদন্তের জন্য যোগাযোগ করে। এরপর এদিন তারা কলকাতায় এসেছে। সম্ভবত ইন্দ্রাণীর প্রথম প্রেমিক তরথা শিনা বোরার বাবা সিদ্ধার্থ দাসকে জেরা করা হবে বলেই মনে করা হচ্ছে।

পুলিশ সূত্রে জানা গিয়েছে, সিনা হত্যা মামলায় জড়িত ইন্দ্রাণীর প্রাক্তন স্বামী সঞ্জীব খান্নার ল্যাপটপ নিতেই কলকাতায় এসেছে মুম্বই পুলিশ। সেই ল্যাপটপ থেকে অনেক গুরুত্বপূর্ণ তথ্য পাওয়া যাবে বলে অনুমান করছে পুলিশ। তবে এদিন সিদ্ধার্থকেও জেরা করা হবে বলে জানা যাচ্ছে।

সিনা হত্যার সব আপডেট জানতে ক্লিক করুন:

১.পুলিশি জেরার মুখে পিটার মুখোপাধ্যায়

২.‘‘আমেরিকায় বহাল তবিয়তে আছে সিনা’’

৩.কলকাতায় খোঁজ মিলল সিনার বাবা সিদ্ধার্থের

৪.রাহুলের মোবাইলে পাঠানো ‘মৃত’ সিনার পাঁচ এসএমএস

সোমবার রাতে সংবাদমাধ্যমের সামনে আসে সিদ্ধার্থ দাস। তাঁর সঙ্গে একসময়ে লিভ-ইন করতেন ইন্দ্রাণী। তাঁর ও ইন্দ্রাণীর প্রথম সন্তান সিনা। বর্তমানে স্ত্রী-পুত্রকে নিয়ে কলকাতায় থাকেন তিনি।

এদিকে, এদিনই মুম্বইতে ইন্দ্রাণী ও পিটারকে সামনা-সামনি বসিয়ে জেরা করে পুলিশ। পিটারের বাড়িতেও যাচ্ছে পুলিশের একটি দল।

প্রশ্ন অনেক: দ্বিতীয় পর্ব