ফাইল ছবি- ছবির সঙ্গে প্রতিবেদনের কোন সম্পর্ক নেই

স্টাফ রিপোর্টার, কলকাতা: মুকুল রায়ের বিজেপিতে যোগের পর থেকে শুভ্রাংশুর রাজনৈতিক ভবিষ্যৎ নিয়ে তৈরি হয়েছে নানা জল্পনা। বাবা মুকুল রায়ের হাত ধরে তাঁর বিজেপি যোগ নাকি ছিল শুধু সময়ের অপেক্ষা।

কিন্তু যতবারই শুভ্রাংশুর বিজেপি যোগের প্রশ্ন উঠেছে ততবারই তা খারিজ করে দিয়েছেন। শুধু তাই নয়, বারাকপুর লোকসভা কেন্দ্রের তৃণমূল প্রার্থী দিনেশ ত্রিবেদীকে বীজপুর বিধানসভা কেন্দ্র থেকে সবথেকে বেশি লিডে জেতানোর কথাও বলেছেন। কিন্তু যিনি কি না বারবার নিজেকে তৃণমূলেরই সৈনিক হিসাবে প্রমাণ করার চেষ্টা করে গিয়েছেন তাঁর মুখেই কিনা বিজেপি যোগের কথা! অবাক হওয়ার মতোই ঘটনা। খোদ মুকুল-পুত্র শুভ্রাংশু কিনা বলছেন বিজেপিতে যোগ দেবেন।

আরও পড়ুন: মুকুল-পুত্র শুভ্রাংশুকে বিজেপিতে স্বাগত জানালেন রাহুল সিনহা

আজ শনিবার মুকুল পুত্র তথা বীজপুরের বিধায়ক শুভ্রাংশু রায়ের সাংবাদিকদের মুখোমুখি হয়ে বিজেপিতে যোগ দেবার ইচ্ছা প্রকাশ করলেন। তাঁর এই বিজেপি যোগের ইচ্ছাপ্রকাশের পরেই রাজ্য-রাজনীতি তোলপাড় শুরু হয়েছে। তাহলে কি সেই জল্পনাই ঠিক ছিল। শুধু ছিল সঠিক সময়ের অপেক্ষা। যদিও সেই বিষয়ে বিশেষ কিছু বলেননি শুভ্রাংশু। তবে বিজেপিতে যোগ দেওয়ার বিষয়ে বেশ কিছু শর্ত দিয়েছেন মুকুল-পুত্র।

আরও পড়ুন: প্রশ্নের মুখে অভিষেকের সততা, শুভ্রাংশুর চিঠিতে শাসকের অন্দরে তোলপাড়

বীজ পুরের তৃণমূল বিধায়ক শুভ্রাংশু রায় সাংবাদিকদের বলেন “যদি কাঁচরাপাড়ার প্রস্তাবিত রেলের কোচ ফ্যাক্টরি বিজেপি তৈরি করে এবং সেখানে বীজপুরের বেকার যুবকদের জন্য ৩০ শতাংশ চাকরির কোটা রাখে তাহলে আমি বিজেপিতে যোগ দিতে রাজী আছি।”তাঁর এই মন্তব্যের পরেও আরও একবার উত্তর ২৪ পরগনায় তৃণমূলের সাংগঠনিক শক্তি ভাঙনের জল্পনা শুরু হয়ে গেল রাজনৈতিক মহলে।