শ্রীনগর: জম্মু কাশ্মীরের প্রাক্তন মুখ্যমন্ত্রী তথা পিডিপি নেত্রী মেহবুবা মুফতির কন্যা ইলতিজা মুফতিকে আটক করার অভিযোগ উঠেছে। বৃহস্পতিবার কাশ্মীর পুলিশ ইলতিজাকে তাঁর বাড়িতেই আটক করে রাখে বলে অভিযোগ। ইলতিজা তাঁর প্রয়াত দাদু তথা কাশ্মীরের প্রাক্তন মুখ্যমন্ত্রী মুফতি মহম্মদ সঈদের সমাধিস্থলে যেতে চেয়েছিলেন।

অনন্তনাগের বিজবেহরা এলাকায় দাদুর সমাধিস্থলে যেতে চাওয়ায় তাঁকে বাড়িতে আটকে দেওয়া হয়েছে বলে তিনি অভিযোগ করেছেন। যদিও কাশ্মীর পুলিশের তরফে মেহবুবা মুফতির কন্যাকে আটক করার অভিযোগ অস্বীকার করা হয়েছে। তবে মুফতি কন্যাকে অনন্তনাগ যাওয়ার অনুমতি দেওয়া হয়নি বলে জানানো হয়েছে পুলিশের তরফে। সেই প্রসঙ্গে কাশ্মীর পুলিশ জানিয়েছে বিশেষ সুরক্ষা বলয়ে থাকা ব্যক্তিদের আগে থেকে কোথাও যেতে হলে আগে থেকে পুলিশের ছাড়পত্র নিতে হয়। কিন্তু মুফতি-কন্যা এমন কোনও ছাড়পত্র নেননি বলে দাবি পুলিশের।

মেহবুবা মুফতির কন্যা ইলতিজা মুফতিকে তাঁর বাড়িতে আটক করার অভিযোগ উঠেছে। এই প্রসঙ্গে ইলতিজা বলেন, ‘বাড়ি থেকে দাদুর সমাধিস্থলে যাচ্ছিলাম৷ শ্রীনগর পুলিশ বাড়ি এসে আমাকে আটকায়। ব্যক্তিগত নিরাপত্তারক্ষী ও গাড়ির চালককে পুলিশের কাছে অনুমতি নিতে পাঠিয়েছিলাম । কিন্তু আমার আবেদন খারিজ করেছে পুলিশ৷’

এমনই অভিযোগ পাঁচ মাস আগেও একবার করেছিলেন ইলতিজা মুফতি। সেই সময় সদ্য জম্মু-কাশ্মীর থেকে ৩৭০ ধারা তুলে নেওয়া হয়েছে৷ সতর্কতা মূলক ব্যাবস্থা হিসেবেই সেই সময় উপত্যকার শতাধিক রাজনৈতিক ব্যক্তিত্বকে আটক করেছিল রাজ্য পুলিশ। সেই তালিকায় ছিলেন সে জম্মু কাশ্মীরের তিন প্রাক্তন মুখ্যমন্ত্রী। তালিকায় ছিলেন ফারুখ আবদুল্লা, ওমর আবদুল্লা আর মেহবুবা মুফতি। সেই সময় মা মেহবুবা মুফতির সঙ্গে তাঁকে পুলিশ আটক করে রেখেছিলন বলে অভিযোগ করেন ইলতিজা মুফতি।

সংবাদসংস্থা পিটিআইকে পুলিশের বিরুদ্ধে আরও অভিযোগ জানিয়ে মেহবুবা মুফতি কন্যা বলেন, ‘আমি বাড়িতেই বন্দি। কোথাও আমাকে যেতে দেওয়া হচ্ছে না। দাদুর সমাধি দেখতে যাবে নাতনি৷ আমাকে আটকানো কি অপরাধ নয়? আমায় কেন আটকানো হচ্ছে? আমি কি পাথরবাজদের একজোট করে অশান্তি বাঁধাবো?’পুলিশ প্রশাসন উপত্যকায় শান্তির পরিবেশ চায় না বলে অভিযোগ ইলতিজা মুফতির।

এদিকে, মেহবুবা মুফতির কন্যা ইলতিজার অভিযোগ প্রসঙ্গে কাশ্মীর পুলিশের তরফে এডিজি (আইন-শৃঙ্খলা) মুনির খান জানান, ইলতিজা মুফতি এসএসজি নিরাপত্তা পান। তাই তাঁকে কোথাও যেতে, আগে পুলিশের অনুমতি নিতে হবে।