মুম্বই: তাঁর ক্রিকেট কেরিয়ার নিয়ে বড় কথা বলে দিয়েছেন ভারতীয় দলের কোচ রবি শাস্ত্রী। এদিকে তিনি মেয়ের সঙ্গে ব্যস্ত বরফ নিয়ে খেলতে। ক্রিকেট মাঠ থেকে তিনি অনেক দূরে, কিন্তু মাঠের বাইরে তাঁকে নিয়ে যখন জল্পনা তুঙ্গে তখন ধোনি বেশ আনন্দেই রয়েছেন। ‘কোয়ালিটি ফ্যামিলি টাইম’ কাটাচ্ছেন ভারতীয় দলের প্রাক্তন অধিনায়ক।

পরিবারের সঙ্গে চুটিয়ে মজা করছেন বিশ্বকাপজয়ী অধিনায়ক মহেন্দ্র সিং ধোনি। নতুন বছরের প্রথম সপ্তাহে তিনি পৌঁছে গিয়েছেন উত্তরাখন্ডের মুসৌরিতে। ইতিমধ্যেই বিশেষ কিছু মুহূর্তের কিছু ছবি সোশ্যাল মিডিয়া পোষ্ট করছেন তাঁর স্ত্রী সাক্ষী। পিছিয়ে নেই ক্যাপ্টেন কুল। ধোনীও এদিন একটি ভিডিও সোশ্যাল মিডিয়ায় পোস্ট করেছেন। ভিডিওয় দেখা যাচ্ছে মেয়ে জিভার সাথে বরফ নিয়ে খেলছেন মাহি। কখন‌ও তিনি মেয়ের সাথে স্নো ম‍্যান বানাতে ব‍্যস্ত, কখন‌ও আবার মেয়ের দিকে তাক করে বরফের গোলা ছুড়তে ব‍্যস্ত তিনি। মেয়ে জিভাও বাবার চাইতে কম নয় সেও বাবাকে তাক করে ছুড়ে চলেছে বরফ অনবরত। তাঁদের সাথে একটি পোষ‍্য কুকুরকেও দেখা গিয়েছে পোজ দিয়ে ছবি তুলতে।

তিনি আগেই বলে দিয়েছেন যে জানুয়ারির আগে যেন তাঁকে অবসরের বিষয়ে কিছু তাঁকে জিজ্ঞাসা করা না হয়। এসবের পর ধোনির পক্ষ থেকে আর কোনও প্রতিক্রিয়া মেলেনি। তিনি নিজের মতো রয়েছেন। তবে রবি শাস্ত্রীর সঙ্গে তাঁর কথা হয়েছে। শাস্ত্রী সেই সাক্ষাৎ নিয়ে কথাও বলেছেন। তিনি জানিয়েছেন কিছুদিন আগেই ধোনির সঙ্গে তাঁর আলোচনা হয়েছে। শাস্ত্রী বলেছেন, ‘আলোচনার বিষয়বস্তু প্রকাশ্যে বলতে চাইনা। তবে টেস্ট কেরিয়ারকে বিদায় জানিয়েছে আগেই। কিছুদিনের মধ্যে হয়তো ওয়ানডে থেকে ক্রিকেট থেকেও সরে দাঁড়াবে ও। হাতে থাকবে কেবল টি২০! ধোনি কোনওভাবেই জাতীয় দলে বাধা হয়ে দাঁড়াতে চায় না। তবে আইপিএলে ভালো খেললে, কে বলতে পারে!’ পাশাপাশি শাস্ত্রী জানিয়েছেন, “ক্রিকেটারদের ফর্ম ও অভিজ্ঞতা আমাদের মাথায় রাখতে হবে। সেই ক্রিকেটারকে ৫ অথবা ৬ নম্বরে ব্যাটিং করতে হবে। যদি ধোনি আইপিএলে ভাল খেলে, তাহলে টি২০ দলের জন্য নিজেকে বিবেচনা করতে পারে।”

দেশের মাটিতে টানা খেলছ ভারত। কিন্তু ধোনির দেখা নিয়ে। একে একে গিয়েছে দক্ষিণ আফ্রিকা, ওয়েস্ট ইন্ডিজ, বাংলাদেশ। শ্রীলঙ্কা সিরিজের পরেই অস্ট্রেলিয়া সিরিজ। তারপরে নিউজিল্যান্ড সফর শেষে আইপিএল। ধোনি ফের কবে জাতীয় দলের জার্সিতে খেলবেন, তা জানেন না কেউ। বিভিন্ন ক্রিকেটার, বিশেষজ্ঞরা নিজেদের মতামত দিয়ে চলেছেন। কিন্তু সাত নম্বর জার্সি স্পষ্ট বার্তা দিচ্ছেন অপেক্ষা করতে হবে। তাড়াহুড়োতে তিনি যে ঘোর অবিশ্বাসী।