রাঁচি: অস্ট্রেলিয়ার বিরুদ্ধে চলতি সিরিজই বিশ্বকাপের আগে ভারতীয় দলের চূড়ান্ত মহড়া। পাঁচ ম্যাচের ওয়ান ডে সিরিজে ২-০ ব্যবধানে এগিয়ে থেকে শুক্রবার রাঁচিতে তৃতীয় ওয়ান ডে’তে অজিদের মুখোমুখি ভারত। ঘরের ছেলে মহেন্দ্র সিং ধোনির হোম গ্রাউন্ড হওয়ায় রাঁচি পৌঁছলেই আলাদা অভ্যর্থনা পেয়ে থাকে ভারতীয় দল। তার উপর শুক্রবার ঘরের মাঠে সম্ভবত কেরিয়ারের শেষ ম্যাচটি খেলতে নামছেন মাহি। তাই ঘরের ছেলেকে নিয়ে বাড়তি উন্মাদনা স্বাভাবিক।

আর সেই উন্মাদনা বেশ কয়েকগুন বাড়িয়ে দিয়ে ধোনির নামে শুক্রবার ম্যাচের আগে স্ট্যান্ড উদ্বোধন হতে চলেছে জেএসসিএ স্টেডিয়ামে। ৮ মার্চ স্টেডিয়ামের সেই স্ট্যান্ড উদ্বোধনের জন্য আমন্ত্রন জানানো হয়েছিল খোদ মহেন্দ্র সিং ধোনিকেই। কিন্তু বরাবরই ব্যতিক্রম মাহি সুকৌশলে এড়িয়ে গেলেন সেই আমন্ত্রণ। মাঠ হোক বা মাঠের বাইরে, বিভিন্ন সময় ব্যতিক্রমী সিদ্ধান্তে অনুরাগীদের নজর কেড়েছেন মাহি। এবারও নিজের নামে স্টেডিয়ামের স্ট্যান্ড উদ্বোধনের আমন্ত্রণ নাকচ করে ব্যতিক্রমী দৃষ্টান্ত স্থাপন করলেন মাহি।

আরও পড়ুন: ধোনির বাড়িতে ডিনার সারল ভারতীয় দল

রাজ্য ক্রিকেট সংস্থাকে আমন্ত্রণ নাকচ করার কারণ হিসেবে অভিনব কথা জানিয়েছেন মাহি। রাজ্য ক্রিকেট সংস্থার সেক্রেটারির কথায় মাহি তাদের সাফ জানিয়েছেন, ‘আমি এই স্টেডিয়ামের একটা অংশ। ঘরের ছেলে হয়ে নিজের নামে প্যাভিলিয়ন উদ্বোধন করা আমার শোভা পায় না। এমনটা হলে নিজেকে বাইরের ছেলে মনে হবে।’

আরও পড়ুন: ম্যাচ হেরে অফিসিয়ালদের কাঠগড়ায় তুললেন ক্ষুব্ধ নেইমার

উল্লেখ্য ভারতীয় ক্রিকেটে বিশ্বজয়ী অধিনায়ক মহেন্দ্র সিং ধোনির অবদানস্বরূপ ঝাড়খন্ড ক্রিকেট অ্যাসোসিয়েশন স্টেডিয়ামের সাউথ প্যাভিলিয়নটি ধোনির নামে করার সিদ্ধান্ত গ্রহণ করে। ২০১৭ বার্ষিক সভাতেই গৃহীত হয়েছিল সিদ্ধান্তটি। সেইমত শুক্রবার ম্যাচের আগে দর্শকদের জন্য খুলে দেওয়া হবে ধোনির নামাঙ্কিত জেএসসিএ স্টেডিয়ামের সাউথ প্যাভিলিয়নটি।

আরও পড়ুন: সিরিজ জয়ের দোরগোড়ায় প্রোটিয়ারা

নিজের নামে স্ট্যান্ড উদ্বোধনে পিছপা হলেও দলের বাকি ক্রিকেটারদের বুধবার নিজের বাড়িতে ডিনারে আমন্ত্রণ জানান ধোনি এবং তাঁর স্ত্রী সাক্ষী। প্রাক্তন বিশ্বজয়ী অধিনায়কের বাড়িতে স্মরণীয় সেই সন্ধের মুহূর্ত ফ্রেমবন্দী করে সোশ্যাল মিডিয়ায় পোস্ট করেন রিস্ট স্পিনার যুবেন্দ্র চাহাল। সিনিয়রের বাড়িতে গালা ডিনারের পর সোশ্যাল মিডিয়ায় ছবি পোস্ট করেন দলনায়ক বিরাটও।

ক্রিকেটারেরা তো ছিলেনই। পাশাপাশি কোচ রবি শাস্ত্রী, ফিজিও প্যাট্রিক ফারহার্ট প্রত্যেকেই উপস্থিত হয়েছিলেন ধোনির আমন্ত্রণে। টুইটারে সেই ছবি পোস্ট করে চাহাল ধন্যবাদ জানান ধোনি এবং তাঁর স্ত্রী-কে।

কলকাতার 'গলি বয়'-এর বিশ্ব জয়ের গল্প