চেন্নাই: আইপিএল ২০২০ জন্য সবার আগে কন্ডিশনিং ক্যাম্প শুরু করে দিল চেন্নাই সুপার কিংস৷ সম্ভবত প্রথম দল হিসেবে সংযুক্ত আরব আমিরশাহীতে পৌঁছবে ধোনি অ্যান্ড কোং৷ তার আগে শুক্রবার চেন্নাই পৌঁছে গেলেন সিএসকে ক্রিকেটাররা৷ শনিবার থেকে চিপকে প্রশিক্ষণ শিবির শুরু করছে ইয়েলোবিগ্রেড৷ তিনবারের আইপিএল চ্যাম্পিয়নরা তাদের সোশ্যাল মিডিয়া পেজে ধোনি এবং অন্য খেলোয়াড়দের চেন্নাই পৌঁছানোর ছবি পোস্ট করেছে৷ CSK

অধিনায়ক মহেন্দ্র সিং ধোনির নেতৃত্বে চিপকে সংক্ষিপ্ত প্রশিক্ষণ শিরিবে রবীন্দ্র জাদেজা ছাড়া দল বাকি ভারতীয় ক্রিকেটাররা যোগ দেবেন৷ শুক্রবারই চার্টাড বিমানে করে ধোনি, সুরেশ রায়না, কেদার যাদব, পীযুষ চাওলা, দীপক চাহার, করণ শর্মা, মনু কুমাররা চেন্নাই পৌঁছন৷ তবে এঁদের মধ্যমণি ছিলেন ক্যাপ্টেন ধোনি৷ আর ঠিক তার পাশে ছিলেন তাঁর ডেপুটি রায়না৷ শিবিরে ১৩ থেকে ১৪ জন ভারতীয় ক্রিকেটার অংশ নেবেন৷

সপ্তাহখানেকের কন্ডিশনিং ক্যাম্পের পরে মরু শহরে উড়ে যাবে ধোনিবাহিনী৷ তবে তার আগে COVID-19 টেস্ট দিতে হবে প্রত্যেক ক্রিকেটারকে৷ সম্ভবত ২১ অগস্ট দুবাইয়ের বিমান ধরবেন সিএসকে ক্রিকেটাররা এর ৭২ ঘন্টা আগে হবে ক্রিকেটারদের করোন পরীক্ষা৷

তবে এই প্রশিক্ষণ শিবিরের হাত ধরে ফের ক্রিকেটে ফিরতে চলেছেন ধোনি৷ গত বছরের জুলাই মাসে ওয়ান ডে বিশ্বকাপের পর ফের ক্রিকেটের মুলস্রোতে ফিরতে চলেছেন প্রাক্তন ভারত অধিনায়ক৷ কারণ ভারতের সেমিফাইনালে নিউজিল্যান্ডের হারের পর থেকে ক্রিকেট খেলেননি ধোনি৷ তাই তাঁর প্রত্যাবর্তন ঘিরে কৌহতূলি ক্রিকেটমহল৷

তবে দেশে করোনাভাইরাসের প্রাদুর্ভাবের আগে ফেব্রুয়ারির শেষে চেন্নাইয়ে সুপার কিংসের প্রস্তুতি শিবিরে যোগ দিয়েছিলেন ধোনি৷ কিন্তু মার্চের শুরুতে দেশে করোনা সংক্রমণ শুরু হওয়ায় প্রস্তুতি শিবির বন্ধ হয়ে যায়৷ ফলে চেন্নাই ছেড়ে রাঁচিতে ফিরেছিলেন বিশ্বজয়ী অধিনায়ক। পাঁচ মাস পর আইপিএল খেলার উদ্যেশে ফ্র্যাঞ্চাইজি স্কোয়াডের সতীর্থদের সঙ্গে মিলিত হলেন ধোনি।

করোনা আবহে এই বছরের আইপিএল হচ্ছে আমিরশাহীতে৷ ৫৩ দিনের টুর্নামেন্টে শুরু হবে ১৯ সেপ্টেম্বর৷ ফাইনাল ১০ নভেম্বর৷ সংযুক্ত আরব আমিরশাহীর ৩টি ভেন্যুতে শুরু হবে আইপিএলের ত্রয়োদশ সংস্করণ। ২০ অগস্টের পর দলগুলি সেদেশে পৌঁছে যেতে পারে বলে নির্দেশ দিয়েছে বিসিসিআই।

ভারতীয় ক্রিকেট বোর্ডের নির্দেশিত প্রোটোকল অনুযায়ী আমিরশাহী উড়ে যাওয়ার ফ্র্যাঞ্চাইজির সকল ক্রিকেটারকে দু’বার নেগেটিভ করোনা রিপোর্টের মধ্যে দিয়ে যেতে হবে। আমিরশাহি পৌঁছনোর পরেও ৩ বার ক্রিকেটারদের শরীরে করোনা পরীক্ষা করা হবে। সব ঠিকঠাক থাকলে এরপর ৬ দিনের আইসোলেশনে থাকতে হবে তাদের। এরপর বায়ো সিকিওর বলয়ে প্রবেশ করে টুর্নামেন্টের জন্য প্রস্তুতি শুরু করবেন ক্রিকেটাররা।

প্রশ্ন অনেক: দশম পর্ব

রবীন্দ্রনাথ শুধু বিশ্বকবিই শুধু নন, ছিলেন সমাজ সংস্কারকও