নয়াদিল্লি: খুশির খবর শোনাল মৌসম ভবন৷ আগামী ২৪ ঘণ্টার মধ্যে কেরলে ঢুকে যাবে দক্ষিণ পশ্চিম মৌসুমী বায়ু৷ যার অর্থ, দেশের মূল ভূখণ্ডে বর্ষা ঢোকা আর কিছুক্ষণের অপেক্ষা৷

আরও পড়ুন: বর্ষার দেরি হওয়ার জের , তাপে পুড়ছে মধ্য ও পূর্ব ভারত

এদিকে বর্ষা আগমনের খবরে কেরলের কয়েকটি জেলায় কমলা সতর্কতা জারি করেছে রাজ্যের প্রাকৃতিক বিপর্যয় মোকাবিলা কর্তৃপক্ষ৷ কেরলের তিরুঅনন্তপুরম, কোল্লাম, আলাপ্পুজা এবং এরনাকুলাম এই চারটি জেলায় কমলা সতর্কতা জারি৷ বর্ষা ঢোকার পর এই চার জেলায় ভারী থেকে অতি ভারী বৃষ্টির পূর্বাভাস দিয়ে রেখেছে মৌসম ভবন৷ পূর্বাভাস অনুযায়ী ৯ এবং ১০ জুন এই চার জেলায় প্রবল বৃষ্টিপাত হবে৷

বৃষ্টির পরিমাণের উপর নির্ভর করে চার ধরনের সতর্কতা জারি করে মৌসম ভবন৷ অন্যদিকে ৯ জুন রাজ্যের সাতটি এবং ১০ জুন পাঁচটি জেলায় হলুদ সতর্কতা জারি করেছে হাওয়া অফিস৷ হলুদ সতর্কতার অর্থ এই ১২ জেলায় ভারী বৃষ্টিপাতের সম্ভাবনা রয়েছে৷ সাধারণত কেরলে বর্ষা আসে ১ জুন, এ বার আসছে ৮ জুন। মানে এক সপ্তাহের দেরিতে বর্ষা ঢুকছে।  বর্ষা দেরি করার ফল ভুগছে গোটা ভারত।

আরও পড়ুন: বিহারি আউট সাইডার’ প্রশান্তকে দরকার পড়লো, মমতাকে কটাক্ষ বিজেপির

গোটা দেশ এখন প্রবল গরমে পুড়ছে৷ উত্তর থেকে দক্ষিণ, পূর্ব থেকে পশ্চিম সব জায়গায় হাঁসফাঁসানি গরমে নাজেহাল সাধারণ মানুষ৷ রাজস্থান ও মহারাষ্ট্রের বেশ কিছু জায়গায় পারদ চড়েছে ৪৯ ডিগ্রিতে৷ মধ্যপ্রদেশ, রাজস্থান, উত্তরপ্রদেশের কিছু অংশে দীর্ঘ দিন ধরে তাপমাত্রা ৪৫ ডিগ্রির উপরেই রয়েছে। তাপমাত্রা নামার কোনও রকম লক্ষণ সেখানে দেখা যাচ্ছে না।

এক পশলা বৃষ্টির জন্য হা পিত্যেস অবস্থা সবার৷ তবে এই গরম আরও এক সপ্তাহ সহ্য করতে হবে৷ কারণ কেরলে বর্ষা ঢুকলেও তার গতি হয়ে যাবে মন্থর৷ দেশের মধ্য ও পশ্চিমভাগে দক্ষিণ পশ্চিম মৌসুমী বায়ু পৌঁছতে অন্তত দিন সাতেক সময় লাগবে৷