নয়াদিল্লি: আর্থিক তছরুপ মামলার দ্বিতীয় দিনে এনফোর্সমেন্ট ডিরেক্টরের মুখোমুখি হলেন রবার্ট ভাদরা৷ সোনিয়া গান্ধীর জামাতাকে জেরা করতে জয়েন্ট ডিরেক্টর ও দুই ডেপুটি ডিরেক্টরকে নিয়ে সাত জনের টিম গঠন করা হয়েছে৷ তারাই জেরা করছেন রবার্টকে৷ টানা জেরার পর কিছুক্ষণের লাঞ্চ ব্রেক দেওয়া হয় তাঁকে৷ দু’ঘণ্টা পর ফের রবার্ট ইডির সদর দফতরে ফিরে আসেন৷ শুরু হয়েছে জেরা পর্ব৷ রিপোর্ট অনুযায়ী রবার্ট ভদরাকে ১২ ফেব্রুয়ারি জয়পুরের ইডি অফিসে হাজিরা দিতে বলা হয়েছে৷

রবার্ট ভাদরার বিরুদ্ধে অভিযোগ, লন্ডনের ১২ ব্রায়ানস্টোন স্কোয়ারে তাঁর ১.৯ মিলিয়ন পাউন্ডের সম্পত্তি রয়েছে৷ সেই সম্পত্তি কেনার সময় ভাদরা ‘পিএমএলএ’ আইন ভঙ্গ করেছেন৷ এই নিয়ে বুধবার দীর্ঘ জেরা করা হয় প্রিয়াঙ্কা গান্ধীর স্বামীকে৷ টানা সাড়ে পাঁচ ঘণ্টার জেরা পর্বে ভাদরা সব অভিযোগ অস্বীকার করেছেন৷

বুধবার দুধ সাদা ল্যান্ড ক্রুজারে করে স্ত্রী প্রিয়াঙ্কা গান্ধীকে নিয়ে ইডি অফিসে আসেন রর্বাট ভাদরা৷ স্পষ্ট ভাষায় প্রিয়াঙ্কা জানিয়ে দেন, সব পরিস্থিতিতে তিনি স্বামীর পাশে আছেন৷ প্রসঙ্গত, এই প্রথম কোনও কেন্দ্রীয় তদন্তকারী সংস্থার মুখোমুখি হন রবার্ট৷ তবে রবার্টকে এখনই গ্রেফতার করা যাবে না বলে জানিয়েছে নিম্ন আদালত৷ ১৬ ফেব্রুয়ারি অবধি এই নিষেধাজ্ঞা আছে৷

বুধবার টানা সাড়ে পাঁচ ঘণ্টার জেরা পর্বে একের পর এক প্রশ্ন করা হয় রবার্টকে৷ ইডি সূত্রে খবর, তিনি সব অভিযোগ অস্বীকার করেছেন৷ তাঁর বয়ান রেকর্ড করা হয়৷ পরে রবার্টের আইনজীবী সুমন জ্যোতি খৈতান সাংবাদিকদের মুখোমুখি হয়ে জানান, তাঁর মক্কেলের বিরুদ্ধে ওঠা সব অভিযোগ মিথ্যা৷ তবে তিনি তদন্তে সবরকমের সহযোগিতা করবেন৷ যখন ডাকা হবে তখনই তিনি আসবেন৷

পচামড়াজাত পণ্যের ফ্যাশনের দুনিয়ায় উজ্জ্বল তাঁর নাম, মুখোমুখি দশভূজা তাসলিমা মিজি।