ফাইল ছবি

কলকাতা: আনলক ওয়ান এ খুলে গিয়েছে হোটেল রেস্তোরা৷ এরপরই নিউটাউনের একটি হোটেলে এক নাবালিকাকে গণধর্ষণের অভিযোগ৷

পুলিস সূত্রে জানা গিয়েছে, এক নাবালিকা নিউটাউন থানায় এসে অভিযোগ দায়ের করে৷ তার অভিযোগ, গতকাল রাতে দুই যুবক তাকে জোর করে হোটেলে নিয়ে যাওয়া হয়৷ তারপর ওই হোটেলে জোর করে তাকে মদ খাওয়ানো হয়৷ এবং তাকে ‘গণধর্ষণ’ করা হয় বলে অভিযোগ৷ এমনকি সারা রাত সে বেহুঁশ অবস্থায় হোটেলেই ছিল৷ জ্ঞান ফিরতেই ভোররাতে বাড়ি ফিরে পরিবারকে সব কথা বলে সে৷ এরপরই পরিবারের সঙ্গে থানায় এসে অভিযোগ দায়ের করে নির্যাতিতা নাবালিকা৷

অন্যদিকে গণধর্ষণের পরই হোটেল থেকে চম্পট দেয় অভিযুক্ত দুই যুবক৷ অভিযোগের ভিত্তিতে তদন্তে নামে নিউটাউন থানার পুলিশ৷ বাড়ি থেকে অভিযুক্ত দুই যুবককে গ্রেফতার করা হয়৷ ধৃত দু’জনের একজনের বয়স ১৯ বছর, অপরজনের বয়স ১৮ বছর৷ ইতিমধ্যেই ধৃত দুই যুবক ও নাবালিকার মেডিক্যাল টেস্ট করিয়েছে পুলিশ৷ ধৃতদের বিরুদ্ধে গণধর্ষণ সহ পকসো আইনেও মামলা রুজু করা হয়েছে৷

এর আগে খাস কলকাতায় এক নাবালিকাকে গণধর্ষণের অভিযোগ উঠে। ঘটনাটি ঘটেছিল পর্ণশ্রী থানা এলাকায়৷

পুলিশ সূত্রে খবর, নিখোঁজ ছিল বারো বছর বয়সি ওই নির্যাতিতা নাবালিকা৷ তার বাড়ির লোক পর্ণশ্রী থানায় একটি নিখোঁজ ডায়েরিও করেন। তাঁরা জানিয়েছেন, ওইদিনই প্রেমিকের সঙ্গে ঘুরতে বেরিয়েছিল ১২ বছরের কিশোরী। প্রেমিকাকে নিয়ে একবালপুরে যায় ওই কিশোর। সেখানে তিন বন্ধুর সঙ্গে দেখা করে সে। বয়ফ্রেন্ড ও তার বন্ধুরা ওই কিশোরীকে মদ্যপান করায়। কিশোরীকে বেহুঁশ হয়ে পড়ে। সেই সুযোগে ৪ জন মিলে তাকে গণধর্ষণ করে বলে অভিযোগ। রাতে আর বাড়ি ফেরেনি কিশোরী।

সকালে বাড়ি ফিরেই পরিবারকে গোটা ঘটনা জানায়। এরপর তাকে নিয়ে থানায় পৌঁছয় পরিবারের লোকজন। ৪ জনের বিরুদ্ধে গণধর্ষণের অভিযোগ করে নাবালিকা। তার অভিযোগের ভিত্তিতে ৪ জনকে আটক করেছে পুলিশ।পরে তাদের গ্রেফতার করা হয়৷ ৪ অভিযুক্তের মধ্যে দু’জন পর্ণশ্রী ও বাকি দু’জন একবালপুরের বাসিন্দা ছিল৷

পপ্রশ্ন অনেক: চতুর্থ পর্ব

বর্ণ বৈষম্য নিয়ে যে প্রশ্ন, তার সমাধান কী শুধুই মাঝে মাঝে কিছু প্রতিবাদ