কলকাতা: স্প্যানিশ কোচ কিবু ভিকুনার পর আগামী মরশুমে প্রথম বিদেশি ফুটবলার হিসেবে চূড়ান্ত করল একজন স্প্যানিশ সেন্ট্রাল ডিফেন্ডারকেই। প্রথম বিদেশি ফুটবলার হিসেবে ২০১৯-২০ মরশুমের জন্য ফ্রান্সিসকো মোরান্তে মার্টিনেজকে দলে নিল সবুজ-মেরুন।

গত মরশুমে স্প্যানিশ ছকে পড়শি ক্লাব ইস্টবেঙ্গল সাফল্য পাওয়ায় ২০১৯-২০ মরশুমে মোহনবাগানও চাইছে স্প্যানিশ ধাঁচে ফুটবল রপ্ত করতে। সেই লক্ষ্যে গতে মাসে কোচ হিসেবে স্প্যানিয়ার্ড কিবু ভিকুনার পর প্রথম বিদেশি হিসেবে স্প্যানীয় ফুটবলারকেই দলে নিল বাগান। উল্লেখ্য, গত মরশুম শেষের পর তাঁদের সকল বিদেশিকেই ছেঁটে ফেলেছিল গঙ্গাপাড়ের ক্লাব। সেন্ট্রাল ডিফেন্ডার ফ্রান্সিসকো মোরান্তে মার্টিনেজ মূলত পরিচিত ফ্রান মার্টিনেজ নামেই।

কেরিয়ারে গ্রানাদা সিএফ, রিয়াল মুর্সিয়া, সিডি বাদাজোজ, করডোবার মত একাধিক স্পেনের ক্লাবে খেলা মার্টিনেজ গত মরসুমে খেলেছেন স্পেনের ‘বি’ ডিভিশন ক্লাব ইন্টারন্যাশনাল দি মাদ্রিদে। স্পেনের তৃতীয় টিয়ার লিগে ইন্টারন্যাশনাল দি মাদ্রিদের হয়ে ২৭ ম্যাচে ২টি গোলও রয়েছে তাঁর। এমনকি প্রাক্তন ক্লাবের হয়ে কিংস কাপের একটি ম্যাচেও প্রতিনিধিত্ব করেন মার্টিনেজ।

দেশীয় ফুটবলার হিসেবে ধনচন্দ্র সিংয়ের মত ক্লাবের হয়ে আই লিগ জয়ী পুরনো সৈনিককে আগামী মরশুমের জন্য ফের দলে নিয়েছে মোহনবাগান। ভারতীয় ফুটবল সার্কিটে অভিজ্ঞ ডিফেন্ডার আশুতোষ মেহতাকেও দলে নিয়েছে শতাব্দীপ্রাচীন ক্লাব। স্বাভাবিকভাবেই ধনচন্দ্র ও আশুতোষ মেহতার পর সেন্ট্রাল ডিফেন্সে বছর ছাব্বিশের মার্টিনেজের অন্তর্ভুক্তি আগামী মরশুমে রক্ষণে অনেকটাই শক্তি বাড়াবে বাগান রক্ষণের। তবে ভারতীয় ফুটবলে সফল হতে দ্রুত আবহাওয়ার সঙ্গে স্প্যানিশ এই ডিফেন্ডারকে মানিয়ে নিতে হবে বলে মনে করছেন বিশেষজ্ঞরা।

একইসঙ্গে স্প্যানিশ ঘরানায় পুরোপুরি অভ্যস্ত মার্টিনেজ কিবু ভিকুনার কৌশল সহজেই রপ্ত করে নেবেন বলেও মত অনেকের। এখন দেখার স্প্যানিশ কোচের অধীনে প্রথমবার ভারতীয় ফুটবল সার্কিটে কতটা সফল হতে পারেন বাগানের নতুন বিদেশি। মোহনবাগানে তাঁর যোগদানের বিষয়টি নিশ্চিত হতেই টুইটারে সমর্থকদের জন্য বার্তা জানিয়েছেন মার্টিনেজ। সোশ্যাল মিডিয়ায় তিনি লেখেন, ‘ভারতের সবচেয়ে পুরনো ক্লাবের নতুন চ্যালেঞ্জ গ্রহণ করে আমি অত্যন্ত খুশি। আশা করি নতুন ক্লাবে সব স্বপ্নপূরণ করতে পারব।’