ইসলামাবাদ: টি-২০ ফর্ম্যাটে এখনও দেশের সেরা পারফর্মার তিনি৷ তাই পিসিবি-র দেওয়া ‘সি’ ক্যাটাগরি চুক্তি মানতে পারেননি মহম্মদ হাফিজ৷ তাই বুধবার পাকিস্তান ক্রিকেট বোর্ডের কেন্দ্রীয় চুক্তির প্রস্তাব ফিরিয়ে দিলেন ৪০ বছর বয়সি এই পাক ক্রিকেটার তথা প্রাক্তন পাক অধিনায়ক৷

২০১৯ বিশ্বকাপের পর থেকে পাকিস্তানের হয়ে কেবল টি-২০ খেলছেন হাফিজ। এই সংস্করণে ব্যাট হাতে সময়টা দারুণ কেটেছে তাঁর। সর্বশেষ ৯টি ইনিংসে করেছেন পাঁচটি হাফ-সেঞ্চুরি। এই সময়ে মাত্র দু’বার ২০ রানের কম স্কোরে আউট হয়েছেন৷ স্বাভাবিকভাবেই টি-২০ ফর্ম্যাটে তিনি যে এখনও পাকিস্তানের একজন স্টার পারফর্মার যে বিষয়ে কোনও সন্দেহ নেই৷

হাফিজ ভদ্রতার সঙ্গে পিসিবি-র কেন্দ্রীয় চুক্তি ফিরিয়ে দেওয়ার পর বোর্ডের চিফ একজিকিউটিভ ওয়াসিম খান এক বিবৃতিতে জানান, ‘সি’ ক্যাটাগরির চুক্তির প্রস্তাব দেওয়া হয়েছিল হাফিজকে। তিনি তা ফিরিয়ে দিয়েছে৷ হাফিজের সিদ্ধান্তে আমি হতাশ৷ তবে আমি ওর সিদ্ধান্তকে সম্মান জানাচ্ছি৷ ও দেশের একজন স্টার পারফর্মার৷ আশা করি, দক্ষিণ আফ্রিকার বিরুদ্ধেও ধারাবাহিকতা ধরে রাখবে৷’ গত বছর আন্তর্জাতিক টি-২০ ক্রিকেটে সেরা পারফর্মার ছিলেন হাফিজ৷ দলের সঙ্গে দক্ষিণ আফ্রিকা সফরে যেতে না-পারায় প্রোটিয়াদের বিরুদ্ধে টি-২০ সিরিজে খেলতে পারবেন না হাফিজ৷ কারণ তিনি দলের সঙ্গে বায়ো-বাবলে ঢুকতে পারেননি৷

অন্যদিকে এক দশক পর টেস্ট দলে ফিরে দারুণ পারফরম্যান্সের পুরস্কার পেয়েছেন ফাওয়াদ আলম। পিসিবি-র কেন্দ্রীয় চুক্তিতে জায়গা পেয়েছেন অভিজ্ঞ এই ব্যাটসম্যান। ধারাবাহিক পারফরম্যান্সে চুক্তিতে উন্নতি হয়েছে পাক উইকেটকিপার ব্যাটসম্যান মহম্মদ রিজওয়ানের। গত বছরের মে মাসে কার্যকর হওয়া বর্তমান কেন্দ্রীয় চুক্তির সময় থেকে টেস্ট ক্রিকেটে পাকিস্তানের সর্বোচ্চ রান সংগ্রাহক রিজওয়ান। এই সময়ে ৭টি ম্যাচে ৫২৯ রান করেছেন তিনি৷ গড় ৫২.৯০। টি-২০ ক্রিকেটে ৬৫ গড়ে ৩২৫ রান করে দেশের হয়ে তৃতীয় সর্বোচ্চ রান করেছেন। উইকেটের পিছনেও যথেষ্ট সফল রিজওয়ান৷ টেস্টে ১৬টি এবং ওয়ান ডে ক্রিকেটে তিনটি এবং টি-২০ ফর্ম্যাটে তাঁর শিকার আটটি।

২০২০-২১ মরশুমে চুক্তিতে ‘বি’ থেকে রিজওয়ান উঠে এসেছেন ‘এ’ ক্যাটাগরিতে। সর্বোচ্চ এই ক্যাটাগরির চতুর্থ সদস্য হলেন তিনি। আগে থেকেই ‘এ’ ক্যাটাগরিতে রয়েছেন অধিনায়ক বাবর আজম, প্রাক্তন অধিনায়ক আজহার আলি এবং ফাস্ট বোলার শাহিন আফ্রিদি। কেন্দ্রীয় চুক্তির ‘সি’ ক্যাটাগরিতে উঠে এসেছেন ফাওয়াদ। আগে তিনি ছিলেন ঘরোয়া ক্রিকেটের চুক্তির ‘এ’ প্লাস ক্যাটাগরিতে। বাঁ-হাতি এই ব্যাটসম্যান ১০ বছর পর টেস্ট দলে ফিরে গত অগস্টে ইংল্যান্ড সফরে ২টি টেস্ট খেলে সুবিধা করতে পারেননি৷ তবে ডিসেম্বরে নিউজিল্যান্ডে প্রথম টেস্টের চতুর্থ ইনিংসে ১০২ রানের দারুণ ইনিংস খেলেন তিনি। তারপর জানুয়ারিতে প্রথম টেস্টে দক্ষিণ আফ্রিকার বিরুদ্ধে সেঞ্চুরি করেন৷

লাল-নীল-গেরুয়া...! 'রঙ' ছাড়া সংবাদ খুঁজে পাওয়া কঠিন। কোন খবরটা 'খাচ্ছে'? সেটাই কি শেষ কথা? নাকি আসল সত্যিটার নাম 'সংবাদ'! 'ব্রেকিং' আর প্রাইম টাইমের পিছনে দৌড়তে গিয়ে দেওয়ালে পিঠ ঠেকেছে সত্যিকারের সাংবাদিকতার। অর্থ আর চোখ রাঙানিতে হাত বাঁধা সাংবাদিকদের। কিন্তু, গণতন্ত্রের চতুর্থ স্তম্ভে 'রঙ' লাগানোয় বিশ্বাসী নই আমরা। আর মৃত্যুশয্যা থেকে ফিরিয়ে আনতে পারেন আপনারাই। সোশ্যালের ওয়াল জুড়ে বিনামূল্যে পাওয়া খবরে 'ফেক' তকমা জুড়ে যাচ্ছে না তো? আসলে পৃথিবীতে কোনও কিছুই 'ফ্রি' নয়। তাই, আপনার দেওয়া একটি টাকাও অক্সিজেন জোগাতে পারে। স্বতন্ত্র সাংবাদিকতার স্বার্থে আপনার স্বল্প অনুদানও মূল্যবান। পাশে থাকুন।.