পাটনা: সপ্তদশ লোকসভা ভোটের মুখে কড়া ভাষায় বিরোধী শিবিরকে আক্রমণ করলেন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী। দুর্নীতিগ্রস্ত বিরোধীদের সমূলে বিনাশ করার প্রতিশ্রুতি দিলেন তিনি। একই সঙ্গে জানিয়ে দিলেন যে তিনি ফের ক্ষমতায় এলে ‘টুকরে টুকরে গ্যাং’ শেষ হয়ে যাবে।

আরও পড়ুন- মুসলিম মহিলারা বোরখা পরে এসে ছাপ্পা ভোট দিচ্ছেন : বিজেপি প্রার্থী

বৃহস্পতিবার বিহারের ভাগলপুরে নির্বাচনী জনসভায় হাজির ছিলেন মোদী। সেখানেই দুর্নীতি এবং সন্ত্রাসবাদ ইস্যুতে বিরোধী শিবিরকে আক্রমণ করেন মোদী। ফের ক্ষমতায় আসতে পারলে সন্ত্রাস এবং দুর্নীতি দূর করতে অত্যন্ত কঠোর হবেন বলে জানিয়েছেন এনডিএ শিবিরের প্রধান মুখ নরেন্দ্র মোদী।

আরও পড়ুন- আমরা সন্ত্রাস দমন করতে চাই, বিরোধীরা দমাতে চাই সেনাকে: মোদী

এদিন ভাগলপুরে বক্তব্য রাখতে গিয়ে মোদী বলেন, “মোদী ফের ক্ষমতায় এলে ওদের দুর্নীতি সমূলে বিনাশ হয়ে যাবে।” একই সঙ্গে তিনি আরও বলেছেন, “রাজবংশীয় রাজনীতি শেষ হয়ে যাবে। গরবের নামে লুট এবং ধর্ম ও জাতের রাজনীতিও শেষ হয়ে যাবে।” পাশাপাশি তিনি আরও বলেন, “টুকরে টুকরে গ্যাং টুকরে টুকরে হয়ে শেষ হয়ে যাবে।”

আরও পড়ুন- ৮০,০০০ জওয়ান আর ড্রোনের নজরে বাস্তারের একটি কেন্দ্রে চলছে ভোট

বক্তব্যে ‘ওদের’ বলতে ঠিক কাদের কথা বলতে চেয়েছেন তা স্পষ্ট করে বলেননি মোদী। তবে কথার সূত্রে স্পষ্ট হচ্ছে কংগ্রেসের কথা। কারণ রাজবংশ বলতে কংগ্রসের গান্ধী পরিবারেকেই কটাক্ষ করে থাকে বিজেপি শিবির। দুর্নীতিগ্রস্ত বোঝাতেও কংগ্রেসকেই টানে বিজেপি। এক্ষেত্রে উল্লেখযোগ্য বিষয় হচ্ছে, দুর্নীতির সঙ্গে কেবলমাত্র কংগ্রেস বা অবিজেপি দলের যোগ রয়েছে এমন নয়। বিজেপি নেতাদের বিরুদ্ধেও দুর্নীতির অভিযোগ রয়েছে। তাদের বিরুদ্ধেও তাঁর সরকার কী পদক্ষেপ নেবে? এই বিষয়টি স্পষ্ট করেননি মোদী।

ইন্টারনেট থেকে সংগৃহীত

আরও পড়ুন- ভোট চলাকালীন নিরাপত্তা রক্ষী ও মাওবাদীদের মধ্যে ব্যাপক গুলির লড়াই

‘টুকরে টুকরে’ শব্দ বিতর্কিত হয়ে ওঠে ২০১৬ সালের শুরুর দিক থেকে। সেই সময়ে দিল্লির জহরলাল নেহরু বিশ্ববিদ্যালয়ের একদল পড়ুয়ার বিরুদ্ধে ‘ভারত তেরে টুকরে হোঙ্গে’ স্লোগান দেওয়ার অভিযোগ ওঠে। বাম ছাত্র সংগঠনের সদস্যদের বিরুদ্ধে সেই স্লোগান দেওয়ার অভিযোগ ওঠে। গ্রেফতার করা হয় একাধিক ছাত্রনেতাকে। যাদের মধ্যে অন্যতম ছিলেন এই লোকসভা ভোটের প্রার্থী কানহাইয়া কুমার।

আরও পড়ুন- কোচবিহারে বিরোধী পোলিং-এজেন্টদের মারধোরের অভিযোগ তৃণমূলের বিরুদ্ধে