নয়াদিল্লি: ভারত-পাক সীমান্তে কমেনি উত্তজনা৷ কিন্তু জারি রয়েছে রাফায়েল যুদ্ধ বিমান কেনা নিয়ে নরেন্দ্র মোদী-রাহুল গান্ধী তরজা৷ প্রধানমন্ত্রী শনিবারই দাবি করেন, যুদ্ধের পরিণাম অন্যকিছু হতে পারত যদি রাফায়েল যুদ্ধবিমান ভারতের হাতে থাকতো৷ রাফায়েল আসতে দেরির জন্য কংগ্রেসকে দায়ী করেন তিনি৷ প্রত্যুত্তরে ট্যুইটে কংগ্রেস সভাপতির তোপ, দেশের নিরাপত্তারক্ষীদের জীবন ঝুঁকিপূর্ণ করার দায় একমাত্র প্রধানমন্ত্রী মোদীর৷

আরও পড়ুন: বালাকোটে জঙ্গি প্রশিক্ষণ কেন্দ্র গুঁড়িয়ে দিয়েছে ভারতীয় বায়ুসেনা: জৈইশ কর্তা

শনিবারই প্রধানমন্ত্রী অভিযোগ করেছিলেন, ভারতীয় বায়ুসেনার সাফল্য নিয়ে প্রশ্ন তোলা হচ্ছে৷ যা সত্যিই দুর্ভাগ্যের৷ দেসের বিরোধী রাজনৈতিক দল এই প্রশ্ন তুলছে দেখে অবাক হতে হচ্ছে৷ সংকীর্ণ রাজনীতির অভিযোগ তোলেন তিনি বিরোধী রাজনৈতিক দলগুলির বিরুদ্ধে৷ তারপরই বলেন, ‘‘প্রথমে পরিবারের স্বার্থ, পরে রাজনৈতিক স্বার্থে রাফালে কেনার বিরোধীতা করা হয়েছে৷’’ তাঁর নিশানায় ছিল কংগ্রেস৷

প্রধানমন্ত্রীর অভিযোগের প্রেক্ষিতে ট্যুইটে তার জবাব দেন কংগ্রেস সভাপতি৷ সরাসরি মোদীকে ‘চোর’ বলে সেখানে উল্লেথ করেন তিনি৷ তিনি লেখেন, আপনার লজ্জা করে না? ৩০ হাজার কোটি টাকা চুরি করে আপনি আপনার বন্ধু অনিল আম্বানিকে দিয়েছেন৷ রাফায়েল জেট এদেশে আসায় বিলম্বের জন্য একমাত্র দায়ী আপনি। উইং কমান্ডার অভিনন্দন বর্তমানের মতো ভারতীয় বায়ু সেনার জওয়ানদের জীবন ঝুঁকিপূর্ণ করার জন্য দায়ী একমাত্র আপনি৷

আরও পড়ুন: বালাকোটে এয়ারস্ট্রাইকের পরে মৃতদেহ সরাতে কড়া ব্যবস্থা নেয় পাক সেনা

সামনেই লোকসভা৷ ভারতীয় বায়ু সেনার এয়ার স্ট্রাইক, অভিনন্দন বর্তমানকে দেশে ফিরিয়ে আনার কূটনৈতিক সাফল্যকে তাদের বলিষ্ঠ পদক্ষেপের পরিণতি বলে ইতিমধ্যেই দাবি করেছে বিজেপি৷ ফলে রাফায়েল যুদ্ধ বিমান কেনার বিষয়টিকেই এই আবেগের মধ্যে মিশিয়ে বিরোধী কংগ্রেসকে আক্রমণে মরিয়া তারা৷ অন্যদিকে, হাত শিবিরের দাবি রাফায়েল কেনায় আর্থিক তছরুপ হয়েছে৷ যা দেশকে বিপন্ন করছে৷ উত্তেজনার মাঝেই তাই এবারের ভোটে জাতীয়তাবোধের পালে হাওয়া তুলে ভোট বৈতরণী পারের স্বপ্ন দেখতে শুরু করেছে শাসক-বিরোধী দু’পক্ষই৷