পেটের ভিতর আস্ত একটা মোবাইল! তাজ্জব ডাক্তাররা
পেটের ভিতর আস্ত একটা মোবাইল! তাজ্জব ডাক্তাররা

কায়রো:  পেটের ভিতর আস্ত একটা মোবাইল! অবাক হচ্ছেন। হ্যাঁ! এটাই সত্যি। গত সাত মাস ধরে মোবাইল ফোনটি ছিল পেটের মধ্যেই। সম্প্রতি যুবকের পেটে করা হয় আলট্রাসনোগ্রাফি। আর সেই রিপোর্ট আসতেই চিকিৎসকদের চোখ কপালে। চাঞ্চল্যকর ঘটনাটি ঘটেছে মিসরের রাজধানী কায়রোর একটি হাসপাতালে।

জানা যায়, গত কয়েকদিন আগে পেটে প্রবল ব্যাথা নিয়ে ওই হাসপাতালে ভর্তি হন ওই যুবক। হঠাত কেন ব্যাথা তা কিছুতেই প্রথমে অনুসন্ধান করতে পারছিলেন না ডাক্তাররা। এরপরেই ওই যুবকের পেটে আলট্রাসনোগ্রাফি করার কথা বলেন ওই হাসপাতালের ডাক্তাররা। এরপরেই করা হয় আলট্রাসনোগ্রাফি।

এরপর রিপোর্ট দেখে রীতিমত চিকিৎসকদের চোখ কপালে। আস্ত একটি মোবাইল ফোন কিনা ২৮ বছরের ওই যুবকটির পেটের ভেতর! একদিন…দুদিন নয়। একেবারে গত সাত মাস ধরেই ওটি পেটের মধ্যেই ছিল। সহকর্মীদের সঙ্গে মজা করতে গিয়ে এটি গিলে ফেলেছিল বলে চিকিৎসকদের জানায় যুবকটি।

তার ধারণা ছিল এটি সে হজম করে ফেলতে পারবে।

দক্ষিণ কায়রোর আল ওয়াটান নামে ওই বেসরকারি হাসপাতালের চিকিৎসক ডা. মো. আল জহোর বলেন, প্রথমে টিউমার মনে করে অস্ত্রোপচারের জন্য আল্ট্রাসনোগ্রাম করা হয়।

পেটের ভিতর আস্ত একটা মোবাইল! তাজ্জব ডাক্তাররা
পেটের ভিতর আস্ত একটা মোবাইল! তাজ্জব ডাক্তাররা

কিন্তু এতে দেখা যায়, আস্ত একটি মোবাইল ফোনসেট। এর পর তাকে দ্রুত হাসপাতালের জরুরি অস্ত্রোপচার ইউনিটে স্থানান্তর করা হয়। রাতারাতি করা হয় অপারেশন। আর তা করে বার করা হয়েছে মোবাইল ফোনটি। জানা যায়, আপাতত ওই যুবক সুস্থই রয়েছে।

পচামড়াজাত পণ্যের ফ্যাশনের দুনিয়ায় উজ্জ্বল তাঁর নাম, মুখোমুখি দশভূজা তাসলিমা মিজি।