মুম্বই: শেষমেষ কঠিন সিদ্ধান্তটা নিয়েই ফেললেন মিতালি রাজ। আন্তর্জাতিক টি-২০ ক্রিকেটকে বিদায় জানালেন ভারতের মহিলা ক্রিকেট দলের ওয়ান ডে ক্যাপ্টেন।

ভারতের টি-২০ ক্যাপ্টেন হরমনপ্রীত কউরের সঙ্গে বেশ কিছুদিন ধরেই বোঝাপড়ার অভাব স্পষ্ট চোখে পড়ছিল মিতালির। ধীর ব্যাটিং করেন, এ-কারণে মিতালিকে প্রথম একাদশে রাখার স্পষ্ট অনীহা দেখা যেত হরমনপ্রীতের মধ্যে। গত টি-২০ বিশ্বকাপের সেমিফাইনালে মিতালিকে রিজার্ভ বেঞ্চে বসিয়ে দেওয়া নিয়ে বিতর্ক হয়েছিল বিস্তর। কার্যত যার জেরে চাকরি যায় কোচ রমেশ পাওয়ারের।

দক্ষিণ আফ্রিকার বিরুদ্ধে আসন্ন টি-২০ সিরিজের জন্য প্রাথমিকভাবে তাঁকে পাওয়া যাবে বলেও জানালেও জাতীয় দলে মিতালির জায়গা পাওয়া নিশ্চিত ছিল না। স্বাভাবিকভাবেই চাপ বাড়ছিল মিতালির উপর। বাদ পড়ার আশঙ্কা থেকেই সম্ভবত সসম্মানে সরে যাওয়া শ্রেয় মনে করেন ভারতের সর্বকালের সেরা ব্যাটার।

টি-২০ খেলা ছাড়লেও জাতীয় দলের হয়ে ওয়ান ডে ক্রিকেটে প্রতিনিধিত্ব করবেন মিতালি। ২০২১ বিশ্বকাপের প্রস্তুতিতে মনোনিবেশ করতে চান বলেই সংক্ষিপ্ত ফর্ম্যাট থেকে সরে যাওয়ার কথা জানিয়েছেন তিনি। নিজের অবসরের কথা ঘোষণা করে মিতালী স্পষ্ট জানিয়েছেন যে, দেশের হয়ে বিশ্বকাপ জেতাই তাঁর একমাত্র লক্ষ্য।

বিসিসিআই’এর বিজ্ঞপ্তিতে মিতালি জানান, ‘২০০৬ থেকে ভারতীয় দলের হয়ে টি-২০ ক্রিকেটে প্রতিনিধিত্ব করার পর অবসরের সিদ্ধান্ত নিয়েছি। ২০২১ ওয়ান ডে বিশ্বকাপের জন্য শক্তি বাঁচিয়ে রাখতে ও নিজেকে প্রস্তুত করার জন্যই এই সিদ্ধান্ত। বরাবরের মত এখনও আমার একমাত্র লক্ষ্য দেশের হয়ে বিশ্বকাপ জেতা। সেই লক্ষ্যে আমি নিজের সেরাটুকু দিতে চাই। বিসিসিআইকে ধন্যবাদ ধারাবাহিক সমর্থনের জন্য। দক্ষিণ আফ্রিকার বিরুদ্ধে ঘরোয়া টি-২০ সিরিজের জন্য ভারতের টি-২০ দলকে শুভেচ্ছা জানাই।’

তিনটি টি-২০ বিশ্বকাপসহ (২০১২, ২০১৪ ও ২০১৬) মিতালি রাজ ভারতীয় টি-২০ দলকে মোট ৩২টি ম্যাচে নেতৃত্ব দিয়েছেন। খেলা ছাড়ার আগে এই ফরম্যাটে তিনিই ভারতের সর্বোচ্চ রান স্কোরার। আন্তর্জাতিক টি-২০ ক্রিকেটে ৩৭.৫ গড়ে মোট ২৩৬৪ রান সংগ্রহ করেছেন মিতালি।