নয়াদিল্লি: কংগ্রেস ক্ষমতায় ফিরলে গরিবদের জন্য ন্যূনতম আয় নিশ্চিত করা হবে বলে রাহুল গান্ধী যে প্রতিশ্রুতি দিয়েছেন তা মোকাবিলা করতে মোদী সরকার এবার নীতি আয়োগের ভাইস চেয়ারম্যান রাজীব কুমারকে আসরে নামালেন৷ রাজীবের ধারণা অনুসারে, এমন প্রকল্প কার্যকর করা সম্ভব নয়। তিনি এক সংবাদ সংস্থাকে দেওয়া সাক্ষাৎকারে এমনটাই জানিয়েছেন৷

রাজীবের বক্তব্য, এই প্রতিশ্রুতি অবাস্তব তাই ক‌ংগ্রেস এই প্রকল্পের খুঁটিনাটি অস্পষ্ট রেখেছে। যদিও প্রাক্তন অর্থমন্ত্রী তথা কংগ্রেস নেতা পি চিদম্বরম জবাবে জানিয়েছেন, কংগ্রেসের ইস্তাহারেই এই প্রকল্পের খুঁটিনাটি দেওয়া হচ্ছে।

এদিকে প্রাক্তন মুখ্য আর্থিক উপদেষ্টা অরবিন্দ সুব্রহ্মণ্যনের দেওয়া সকলের জন্য ন্যূনতম আয়ের পদ্ধতিকেও রাজীব সমর্থন করেন না বলে জানিয়েছেন। এই প্রসঙ্গে তাঁর বক্তব্য, এ দেশে মানুষকে সামাজিক নিরাপত্তা দিতে ভর্তুকির তুলনায় কাজে উৎসাহদানের ভর্তুকিই বেশি গ্রহণযোগ্য। চিনের মতো বহু দেশে তরুণ প্রজন্মকে ভর্তুকি দেওয়ার বদলে কাজে উৎসাহিত করে ভাল ফল মিলেছে বলে যুক্তি দেখান৷

সম্প্রতি পেশ করা বাজেটে মোদী সরকার চাষিদের বছরে ৬,০০০ টাকা আর্থিক সাহায্যের প্রকল্পের কথা বলেছেন৷ যদিও বিরোধীদের অভিযোগ, ওই প্রকল্পে পর্যাপ্ত টাকা দেওয়া হয়নি৷ মোদী সরকারের পদক্ষেপের পক্ষে সওয়াল করতে রাজীব জানান, গরিব বা প্রান্তিক কৃষক পরিবারের মাসিক আয় ৩,০০০-৪,০০০ টাকা মধ্যে ফলে সেখানে মাসে বাড়তি ৫০০ টাকা খুব কম নয়।