নয়াদিল্লি: নন্দন নিলেকানকে  সঙ্গে নিয়ে একটি প্রযুক্তি নির্ভর মাইক্রোফিনান্স সংস্থা তৈরি করতে চলেছেন টাটা গোষ্ঠীর চেয়ারম্যান এমিরেটাস রতন টাটা৷ এদেশের যে সমস্ত শিল্প সংস্থা কম ঋণ পায় সেই সব শিল্পক্ষেত্রগুলির ঋণের চাহিদা মেটাতে অবন্তী ফিনান্স নামে এই মাইক্রোফিনান্স সংস্থা তৈরি করছেন এই তিন  শিল্পপতি৷ টাটা সন্সের চেয়ারম্যান পদ থেকে সরে যাওয়ার পর  দেশ -বিদেশের বিভিন্ন সদ্যোজাত সংস্থায় ব্যক্তিগত লগ্নি করতে দেখা গিয়েছে রতন টাটাকে৷ ওই পথেই চলতে দেখা গিয়েছে  ইনফোসিসের সহ -প্রতিষ্ঠাতা এবং ইউআইডিএআই -এর প্রাক্তন অধিকর্তা নন্দন নিলেকানিকে৷ পরিকল্পনা করা হয়েছে জনকল্যাণের লক্ষ্যে সরিয়ে রাখা মূলধন থেকেই এই মাইক্রোফিনান্স সংস্থাটিতে বিনিয়োগ করবেন টাটা ও নিলেকানি৷তারপর সংস্থাটির  মুনাফার পুরো টাকাটাই আবার ওই ফান্ডে জমা পড়বে এবং দুজনের কেউই তা নেবেন না  বলে জানা গিয়েছে৷ কয়েক দিনের মধ্যেই ভারতীয় রিজার্ভ ব্যাংকের কাছে নথিভুক্তির জন্য আবেদন করবে অবন্তী ফিনান্স৷

লাল-নীল-গেরুয়া...! 'রঙ' ছাড়া সংবাদ খুঁজে পাওয়া কঠিন। কোন খবরটা 'খাচ্ছে'? সেটাই কি শেষ কথা? নাকি আসল সত্যিটার নাম 'সংবাদ'! 'ব্রেকিং' আর প্রাইম টাইমের পিছনে দৌড়তে গিয়ে দেওয়ালে পিঠ ঠেকেছে সত্যিকারের সাংবাদিকতার। অর্থ আর চোখ রাঙানিতে হাত বাঁধা সাংবাদিকদের। কিন্তু, গণতন্ত্রের চতুর্থ স্তম্ভে 'রঙ' লাগানোয় বিশ্বাসী নই আমরা। আর মৃত্যুশয্যা থেকে ফিরিয়ে আনতে পারেন আপনারাই। সোশ্যালের ওয়াল জুড়ে বিনামূল্যে পাওয়া খবরে 'ফেক' তকমা জুড়ে যাচ্ছে না তো? আসলে পৃথিবীতে কোনও কিছুই 'ফ্রি' নয়। তাই, আপনার দেওয়া একটি টাকাও অক্সিজেন জোগাতে পারে। স্বতন্ত্র সাংবাদিকতার স্বার্থে আপনার স্বল্প অনুদানও মূল্যবান। পাশে থাকুন।.

করোনাকালে বিনোদন দুনিয়ায় কী পরিবর্তন? জানাচ্ছেন, চলচ্চিত্র সমালোচক রত্নোত্তমা সেনগুপ্ত I