স্টাফ রিপোর্টার, বালুরঘাট: বেশি টাকা রোজগারের আশায় গ্রাম ছেড়ে ভিনদেশে কাজের উদ্দ্যেশ্যে পাড়ি দিয়েছিল বালুরঘাটের কুশমন্ডির দুর্গাপুর এলাকার বাসিন্দা নুর আলম । কিন্তু ভিনদেশে গিয়ে দালালের চক্করে পড়ে ভিসা বিভ্রাটে বালুরঘাটের ওই যুবককে কিছুদিন কাটাতে হয় পুলিশের হেপাজতে।

এদিকে ছেলেকে ঘরে ফিরিয়ে আনার জন্য স্থানীয় সাংসদ থেকে শুরু করে ভারতীয় বিদেশমন্ত্রকে কাতর আর্জি জানান ওই যুবকের মা ফারেসা বেগম । অবশেষে ভারত সরকারের বিদেশমন্ত্রকের এক মাসের প্রচেষ্টায় নূর আমলকে দেশে ফেরানো সম্ভব হয় বলে জানা গিয়েছে। বুধবার রাতে মালয়েশিয়ার কোয়ালালামপুর থেকে ওই যুবকের প্লেন এসে পৌঁছয় দমদম বিমানবন্দরে। সেখান থেকেই মায়ের হাত ধরে ঘরে ফেরে নূর আলম।

আরও পড়ুন : ‘বিগ বস ১৩’-য় অবাধ অশালীনতা, শো বন্ধ করার দাবিতে সরব বিজেপি বিধায়ক

জানা গিয়েছে, কয়েক বছর আগে বেশী রোজগারের আশায় ঠিকাদারির পেশা ছেড়ে ভিনদেশ মালয়েশিয়ায় পাড়ি জমিয়েছিল দক্ষিন দিনাজপুর জেলার বালুরঘাটের কুশমণ্ডি দুর্গাপুর এলাকার বাসিন্দা নুর আলম। সূত্রের খবর, মালেশিয়ায় গিয়ে কাজ করলেও গত কয়েকমাস আগে ভিসার মেয়াদ শেষ হয়ে যায় ওই যুবকের। ফলে ভিসা শেষ হয়ে যাওয়ার পরেও বিদেশে থাকার অপরাধে মালয়েশিয়ার পুলিশ তাকে আটক করে।

ওই যুবক জানিয়েছেন, ভিসার মেয়াদ শেষ হবার আগেই সে এক দালালকে ভিসার মেয়াদ বৃদ্ধির জন্য টাকা দিলেও, ওই দালাল কাজ না করেই নুরের টাকা নিয়ে বাংলাদেশ পালিয়ে যায়। ফলে স্বাভাবিক ভাবে নুরের দেশে ফিরে আসা তথা বাড়ি ফিরে আসার সব রাস্তা বন্ধ হয়ে যায়। এদিকে ছেলের সঙ্গে কোনরকম যোগাযোগ না করতে পেরে নুরের মা ফায়েসা বেগম বালুরঘাটের সাংসদ সুকান্ত মজুমদারকে সব কথা জানান৷

জানা গিয়েছে নুর আলমকে বিদেশ থেকে ফিরিয়ে আনতে ফায়েসা বেগমকে সবরকমের সহযোগিতা করার আশ্বাস দেন তিনি। ফায়েসা বেগম এবং বিজেপির ওই সাংসদের তরফে নুর আলমকে মালয়েশিয়া থেকে ভারতে ফিরিয়ে আনার জন্য বিদেশমন্ত্রকের কাছে আবেদন জানানো হয়। অবশেষে বিদেশমন্ত্রকের আবেদনে সাড়া দিয়ে মালয়েশিয়া থেকে ওই যুবককে কলকাতায় ফেরানোর ব্যবস্থা করা হয়।

আরও পড়ুন : নির্ভয়ে ঘুরতে আসুন কাশ্মীরে, নিষেধাজ্ঞা উঠিয়ে আশ্বাস মোদী সরকারের

দীর্ঘ তিয়াত্তর দিন পরে বুধবার রাত ১২.৩৫ মিনিট নাগাদ মালয়েশিয়ার কোয়ালালামপুর বিমানবন্দর থেকে দমদম এয়ারপোর্টে এসে পৌঁছান এই যুবক। এদিকে ঘরের ছেলে ঘরে ফেরায় খুশি নুরের মা ফায়েশা বেগম।

সূত্রের খবর, দমদম বিমানবন্দর থেকে বুধবার কলকাতার চিতপুর থেকে ট্রেনে চেপে বুনিয়াদপুর স্টেশনে পৌছায় নুর আলম। সেখানে পৌঁছাতেই বিজেপির পক্ষ থেকে গলায় মালা পড়িয়ে স্বাগত জানানো হয় তাঁকে। জানা গিয়েছে সেখানে উপস্থিত ছিল বিজেপির একঝাঁক নেতা।

এদিকে ছেলে ঘরে ফিরতেই বালুরঘাটের সাংসদ সহ অন্যান্য নেতাদের ধন্যবাদ জানিয়েছেন নুরের মা। জানা গিয়েছে নুরের ঘরে ফেরার খবরে খুশি জেলা বিজেপির নেতারাও। এদিকে বুধবার মায়ের হাত ধরে নুর প্রতিজ্ঞা করেছে মাকে ছেড়ে সে আর কখনও বিদেশে কাজ করতে যাবে না।