স্টাফ রিপোর্টার, কলকাতা: লকডাউনের দ্বিতীয় দফায় এত দিন সকাল ৮টা থেকে বিকেল ৪টে পর্যন্ত আট ঘণ্টা মিষ্টির দোকান খোলা রাখা হচ্ছিল। নতুন ব্যবস্থায় সেই সময়সীমা চার ঘণ্টা কমিয়ে বেলা ১২টা পর্যন্ত মিষ্টির দোকান খোলা রাখা যাবে বলে জানিয়েছে রাজ্য সরকার। ফুলের দোকানগুলিও খোলা থাকবে বেলা ১২টা পর্যন্তই। করোনা সংক্রমণের উদ্বেগ বাড়ছে বাংলায়।

এই পরিস্থিতিতে ভাইরাস মোকাবিলায় আরও কঠোর পদক্ষেপের পথে হাঁটতে চলেছে রাজ্য সরকার। এবার থেকে লকডাউনে ফুল ও মিষ্টির দোকান খোলা রাখার সময় কাটছাঁট করা হল। লকডাউন ঘোষণার পরে প্রথম দফায় মিষ্টির দোকান বেলা ১২টা থেকে বিকেল ৪টে পর্যন্ত খোলা রাখার কথা জানিয়েছিল সরকার। দ্বিতীয় দফায় আরও চার ঘণ্টা বাড়ানো হয়।

সকাল ৮টা থেকে বিকেল ৪টে পর্যন্ত দোকান খোলা রাখতে পারছিলেন বিক্রেতারা। সোমবার সেই সিদ্ধান্ত বদল করে বলা হয়েছে, বেলা ১২টা পর্যন্ত মিষ্টির দোকান খোলা রাখা যাবে। ফুলের দোকানের ক্ষেত্রেও সময় বেঁধে দিয়েছে রাজ্য সরকার। এ দিনের নির্দেশিকায় আবার জানিয়ে দেওয়া হয়েছে, সব ক্ষেত্রেই পারস্পরিক দূরত্ব এবং স্বাস্থ্যবিধি মেনে কেনাবেচা চালাতে হবে। বাজারে ঢোকা এবং বেরোনোর ক্ষেত্রেও নিয়ন্ত্রণের চেষ্টা চলছে বলে জানান মুখ্যসচিব। রাজ্য সরকার স্থির করেছে, পাঁচ জন বেরিয়ে এলে তবেই আবার পাঁচ জন বাজারে ঢুকতে পারবেন।

বাজার নিয়ন্ত্রণে সকলের সহযোগিতা চেয়ে মুখ্যসচিব বলেন, ‘‘প্রত্যেককে সচেতন এবং দায়বদ্ধ হতে হবে। খুব প্রয়োজন ছাড়া বেরোবেন না। নিজের, পরিজন এবং প্রতিবেশীকে সঙ্কটে ফেলবেন না।’’

সোমবার পর্যন্ত বাংলায় করোনা আক্রান্তের সংখ্যা ছুঁয়েছে ২৪৫। এখনও পর্যন্ত এ রাজ্যে ভাইরাসে মৃত্যু হয়েছে ১২ জনের, মোট সুস্থ হয়েছেন ৭৩ জন। এমনটাই জানালেন মুখ্যসচিব রাজীব সিনহা।

প্রশ্ন অনেক: দশম পর্ব

রবীন্দ্রনাথ শুধু বিশ্বকবিই শুধু নন, ছিলেন সমাজ সংস্কারকও