মুম্বই: ফুসফুসের ক্যান্সারে আক্রান্ত অভিনেতা সঞ্জয় দত্ত। মঙ্গলবার এই রিপোর্ট প্রকাশ্যে আসে। বলিউডের মুন্না ভাই স্টেজ থ্রি ক্যান্সারে আক্রান্ত। তিনি নিজেই টুইট করে জানান স্বাস্থ্যের জন্য কাজ থেকে কিছুদিন ছুটি নিচ্ছেন। স্বাভাবিকভাবেই এই খবর প্রকাশ রাস্তায় মন খারাপ হয়েছে তার পরিবার ও অনুরাগীদের। সঞ্জয় দত্তের স্ত্রী মান্যতা দত্ত এই বিষয়ে একটি বিজ্ঞপ্তি প্রকাশ করেছেন।

বিজ্ঞপ্তির মাধ্যমে তিনি বলছেন যে, আগেও তাদের এরকম নানা রকমের পরীক্ষা দিতে হয়েছে। এই পরীক্ষাতেও তারা সফল হবে বলেই মনে করছেন মান্যতা। বুধবার প্রকাশ করা এই বিজ্ঞপ্তিতে মান্যতা বলছেন, “যারা সঞ্জয় দ্রুত আরোগ্য কামনা করেছেন তাদের সকলকে আমি ধন্যবাদ জানাই। এই সময়টা কাটাতে আমাদের প্রচুর শক্তি এবং আপনাদের সকলের প্রার্থনা প্রয়োজন। অতীতেও আমাদের পরিবার অনেক কঠিন সময়ের মধ্যে দিয়ে গিয়েছে। কিন্তু আমার বিশ্বাস সময়টাও আমরা কাটিয়ে উঠতে পারবো।”

কোনো রকমের গুজবে কান দিতে নিষেধ করেছেন মান্যতা। পরিবর্তে সঞ্জয়ের অনুরাগীদের তার জন্য প্রার্থনা করার অনুরোধ করেছেন তিনি। সঞ্জয় ঘরনী বলছেন, “আমি সকলের কাছে অনুরোধ করছি তারা যেন কোন রকমের গুজবে কান না দেন। বদলে তারা যেন এভাবেই ভালবেসে পাশে থাকেন। সঞ্জু এবং আমাদের গোটা পরিবার যোদ্ধার মতো। তাই ঈশ্বর আমাদের জন্য আরও একটি পরীক্ষার ব্যবস্থা করেছেন। দেখছেন আমরা এই পরীক্ষাতেও সফল হই কিনা। আমাদের শুধু দরকার আপনাদের প্রার্থনা ও ভালোবাসা। জানি আমরা সবসময়ের মতই এবারেও সফল হব। এই সময়টাকে সুযোগ হিসেবে ব্যবহার করে আমরা মানুষের মধ্যে ইতিবাচক বার্তা দিতে পারব।”

গত সপ্তাহের শেষে মুম্বইয়ের লীলাবতী হাসপাতালে ভর্তি হন তিনি। পরের দিনই বাড়িতে ফিরে আসেন। সেই সময় তিনি ট্যুইট করে জানিয়েছিলেন যে, তাঁর করোনা হয়নি। সুস্থ হয়ে শীঘ্রই বাড়ি ফিরছেন তিনি। মঙ্গলবার ফের হাসপাতালে যান তিনি। এরপরই তিনি জানান যে চিকিৎসা করানোর জন্য আপাতত কাজ থেকে বিরতি নিচ্ছেন তিনি। এরপরই জানা যায় যে ক্যান্সারে আক্রান্ত তিনি। মারণ রোগের চিকিৎসার জন্য আমেরিকায় পাড়ি দিচ্ছেন তিনি।

ট্যুইটে তিনি লিখেছেন, ‘বন্ধুরা, আমি একটা ছোট্ট বিরতি নিচ্ছি চিকিৎসার জন্য। আমার সঙ্গে আছে আমার পরিবার ও বন্ধুরা। আমার শুভাকাঙ্খীদের বলছি, অযথা জল্পনা ছড়াবেন না। আপনাদের ভালোবাসায় আমি খুব তাড়াতাড়ি ফিরে আসব।’ এই খবর প্রকাশ্যে আসতেই মঙ্গলবার সঞ্জয় দত্তের অনুরাগীরা তার দ্রুত আরোগ্য কামনায় বিভিন্ন পোস্ট করেন। এই খবরে যে তারা বেশ মর্মাহত তাও জানান অনেকে।

প্রশ্ন অনেক: দশম পর্ব

রবীন্দ্রনাথ শুধু বিশ্বকবিই শুধু নন, ছিলেন সমাজ সংস্কারকও