স্টাফ রিপোর্টার, কলকাতা: দেশের ১৪ তম রাষ্ট্রপতি রাম নাথ কোবিন্দের শপথ গ্রহণ অনুষ্ঠানে যোগ দিতে দিল্লি যাচ্ছেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়৷ আগামী ২৪ তারিখ দিল্লির উদ্দেশে রওনা দেবেন তিনি৷ অনুষ্ঠানে যোগ দেওয়ার জন্য কলকাতায় তাঁর সমস্ত অনুষ্ঠান বাতিল করেছে বলে জানা গিয়েছে ৷

রাজভবন থেকে রাইসিনা হিল! কোবিন্দের পদে কেশরী

রাষ্ট্রপতি নির্বাচনকে কেন্দ্র করে কংগ্রেস সোনিয়া গান্ধীর নেতৃত্বে বিরোধী শিবিরের যে জোট তৈরি হয়েছিল তাতে অন্যতম মুখ্য ভূমিকা নিয়েছিলেন তৃণমূল নেত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়৷ বিজেপির পছন্দের প্রার্থীকে যাতে অ-বিজেপি দলগুলি ভোট না দেন তার জন্য আবেদনও করেছিলেন তিনি৷ সেই মতো দলিত নেত্রী মীরা কুমারকে ভোট দেন তাঁর দলের সাংসদ-বিধায়করা৷ তবে বিপুল সমর্থন পেয়ে নব রাষ্ট্রপতি নির্বাচিত হন এনডিএ প্রার্থী রামনাথ কোবিন্দ৷

আগামী ২৫ তারিখ তাঁর শপথ গ্রহণ অনুষ্ঠান উপলক্ষে রাষ্ট্রপতি ভবনে বিশেষ অনুষ্ঠানের আয়োজন করা হয়েছে৷ তাতে কেন্দ্রীয় মন্ত্রী ছাড়াও সকল রাজ্যের মুখ্যমন্ত্রীদের আমন্ত্রণ জানানো হয়েছে৷ এছাড়াও প্রত্যেকটি রাজনৈতিক দলের প্রতিনিধিদের ওই অনুষ্ঠানে উপস্থিত থাকার জন্য আমন্ত্রণ জানানো হয়েছে৷ জানা গিয়েছে ওই অনুষ্ঠানে যোগ দিতে আগামিকালই দিল্লির উদ্দেশে রওনা দেবেন রাজ্যের মুখ্যমন্ত্রী তথা তৃণমূল নেত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়৷ সূত্রের খবর, রামনাথ কোবিন্দের বিরোধিতা করলেও নতুন রাষ্ট্রপতির সঙ্গে সম্পর্ক খারাপ হোক তা চান না মমতা৷ সেই কারণেই ওই অনুষ্ঠানে যোগ দেওয়ার সম্মতি জানিয়েছেন তিনি৷

রাজভবন থেকে রাইসিনা হিল! কোবিন্দের পদে কেশরী

এদিকে আগামিকাল মহানায়ক উত্তম কুমারের প্রয়াণ দিবস উপলক্ষে দক্ষিণ কলকাতার নজরুল মঞ্চে একটি বিশেষ অনুষ্ঠান রয়েছে৷ তবে সেই অনুষ্ঠানের সময়সীমা ঘণ্টা দু’এক বাড়িয়ে আনা হয়েছে৷অনুষ্ঠান শেষেই বিকেল পাঁচটা নাগাদ বিশেষ বিমানে রাজধানী উড়ে যাবেন মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়৷

লাল-নীল-গেরুয়া...! 'রঙ' ছাড়া সংবাদ খুঁজে পাওয়া কঠিন। কোন খবরটা 'খাচ্ছে'? সেটাই কি শেষ কথা? নাকি আসল সত্যিটার নাম 'সংবাদ'! 'ব্রেকিং' আর প্রাইম টাইমের পিছনে দৌড়তে গিয়ে দেওয়ালে পিঠ ঠেকেছে সত্যিকারের সাংবাদিকতার। অর্থ আর চোখ রাঙানিতে হাত বাঁধা সাংবাদিকদের। কিন্তু, গণতন্ত্রের চতুর্থ স্তম্ভে 'রঙ' লাগানোয় বিশ্বাসী নই আমরা। আর মৃত্যুশয্যা থেকে ফিরিয়ে আনতে পারেন আপনারাই। সোশ্যালের ওয়াল জুড়ে বিনামূল্যে পাওয়া খবরে 'ফেক' তকমা জুড়ে যাচ্ছে না তো? আসলে পৃথিবীতে কোনও কিছুই 'ফ্রি' নয়। তাই, আপনার দেওয়া একটি টাকাও অক্সিজেন জোগাতে পারে। স্বতন্ত্র সাংবাদিকতার স্বার্থে আপনার স্বল্প অনুদানও মূল্যবান। পাশে থাকুন।.

করোনা পরিস্থিতির জন্য থিয়েটার জগতের অবস্থা কঠিন। আগামীর জন্য পরিকল্পনাটাই বা কী? জানাবেন মাসুম রেজা ও তূর্ণা দাশ।